খেলা

ফুটবলের টাকা শুষে নিচ্ছে এজেন্টরা!

২১:৪৯:০০ মিনিট, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৮

খেলোয়াড়দের দলবদলে ক্লাবগুলো মিলিয়ন মিলিয়ন ব্যয় করে শুধু এজেন্টদের পেছনেই। এ এজেন্টদের দৌরাত্ম্য শেষ করার দাবি উঠেছে, যাতে সমর্থন দিলেন ওয়েস্ট হ্যাম ইউনাইটেডের কো-চেয়ারম্যান ডেভিড গোল্ড।

বৃহস্পতিবার প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবগুলোর বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়, যেখানে এজেন্ট নিয়ে বিশদ আলোচনা হয়। কিছু এজেন্ট একই সঙ্গে খেলোয়াড় ও ক্লাবের প্রতিনিধিত্ব করে এবং দুই পক্ষের কাছ থেকেই ফি আদায় করে নেয়। এ নিয়ে গোল্ড বলেন, ‘তারা ফুটবল থেকে টনের পর টন অর্থ শুষে নিচ্ছে। অথচ তারা ফুটবলের জন্য কিছুই করছে না। তাই আমরা তাদের যতটা সম্ভব কম অর্থ দেয়ার চেষ্টা করছি।’

এ সপ্তাহে ‘দ্য টাইমস’ পত্রিকার এক খবরে বলা হয়, গত মৌসুমে প্রতি পাঁচটি দলবদলের মধ্যে চারটিতেই খেলোয়াড় ও ক্লাবের প্রতিনিধিত্ব করেছেন একই এজেন্ট এবং তাদের দুই পক্ষই ফি নির্দিষ্ট করে দিয়েছে। এ নিয়ে গোল্ড বলেন, ‘আমি এটা বিশ্বাসই করতে পারি না। আসলে এজেন্ট ছাড়া মনে হয় বাকি সবাই তাদের বিরুদ্ধে। তারা ফুটবলের জন্য কিছুই করে না। এফএ হয়তো আমাদের অনুভূতি বুঝতে পারছে, তাই আশা করি এ ব্যাপারে তারা কিছু একটা করবে। এটা এমন কোনো বিষয় না, যা আমরা চাই কিন্তু তারা চায় না। এখন আমরা ফিফা ও উয়েফার দ্বারস্থও হবো, আশা করি তারা আমাদের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করবে।’

এফএর দেয়া তথ্য মতে, ২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারি থেকে এ বছর জানুয়ারি পর্যন্ত প্রিমিয়ার লিগের ক্লাবগুলো শুধু এজেন্টের পেছনে খরচ করেছে ২১ কোটি ১০ লাখ পাউন্ড (প্রায় ২ হাজার ৩১৮ কোটি টাকা)! এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি ২ কোটি ৭০ লাখ পাউন্ড এজেন্টকে দিয়েছে লিভারপুল। আর ২ কোটি ৫০ লাখ পাউন্ড খরচ করে তাদের পরেই রয়েছে চেলসি। এএফপি