বাংলাদেশ ব্যাংকের সাসটেইনেবল রেটিংয়ে তৃতীয়বারের মতো শীর্ষস্থানে আইপিডিসি ফাইন্যান্স

বণিক বার্তা অনলাইন

ফাইল ছবি

শীর্ষ আর্থিক প্রতিষ্ঠান হিসেবে বাংলাদেশ ব্যাংকের সাসটেইনেবল রেটিং-২০২৩ পেয়েছে আইপিডিসি ফাইন্যান্স। 

চতুর্থবারের মতো দেশের ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর (এনবিএফআই) সাসটেইনেবল রেটিং-২০২৩ প্রকাশ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এতে চার সূচকে উত্তীর্ণ হওয়া ১০টি ব্যাংক ও তিনটি আর্থিক প্রতিষ্ঠান স্থান পেয়েছে। 

দেশের ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর ২০২৩ সালের কার্যক্রম মূল্যায়ন করে গতকাল বুধবার (১০ জুলাই) সাসটেইনেবল রেটিং প্রকাশ করা হয়। ২০২৩ সালে এতে স্থান পাওয়া আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোর একটি আইপিডিসি। 

টেকসই অর্থায়ন নির্দেশক (সাসটেইনেবল ফাইন্যান্স ইন্ডিকেটর), সবুজ পুনঃঅর্থায়ন (গ্রিন রিফাইন্যান্স), সামাজিক দায়বদ্ধতা কার্যক্রম (সিএসআর) ও মূল ব্যাংকিং কার্যক্রমের টেকসই সক্ষমতা (কোর ব্যাংকিং সাসটেইনেবিলিটি) সূচকের ভিত্তিতে সাসটেইনেবল রেটিং প্রণয়ন করে বাংলাদেশ ব্যাংক। 

এক্ষেত্রে আইপিডিসি ফাইন্যান্স তৃতীয়বারের মতো নিজেদের অবস্থান নিশ্চিত করেছে।

আইপিডিসির ম্যানেজিং ডিরেক্টর রিজওয়ান দাউদ সামস এ স্বীকৃতির জন্য এবং ফাইন্যান্সিয়াল সেক্টরে সাসটেইনিবিলিটির চর্চাকে উৎসাহিত করতে পথপ্রদর্শন করায় ও নেতৃত্ব দিয়ে সামনে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ায় বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। 

তিনি বলেন, এই স্বীকৃতি প্রমাণ করে যে শুধু পরিবেশবান্ধব উদ্যোগ না বরং আমাদের প্রতিটি কাজের মধ্যে সাসটেইনেবিলিটির চর্চাকে সমন্বিত করার মাধ্যমে আমরা সঠিক পথে এগোচ্ছি। 

আইপিডিসি তাদের সীমাহীন প্যাশনকে অব্যাহত রেখে এভাবেই এগিয়ে যেতে চায় বলে জানান রিজওয়ান দাউদ সামস। 

তিনি আরো বলেন, পরিবেশবান্ধব ইনোভেটিভ গ্রিন ফাইন্যান্সিং সলিউশন প্রদান করা, গ্রিন রিফাইন্যান্সকে আরো উৎসাহিত করা - এসব আইপিডিসির নিয়মিত কার্যপ্রক্রিয়ার অংশ। তবে এ রেটিং থেকে প্রতিফলিত হয় যে এর বাইরেও আইপিডিসির স্ট্র্যাটেজিক ফোকাসে রয়েছে সিএমএসএমইর প্রবৃদ্ধি, দীর্ঘমেয়াদি লাভজনকতা, তারল্য, মূলধন পর্যাপ্ততা, খেলাপি ঋণ, ক্রেডিট রেটিং, আর্থিক অন্তর্ভুক্তি, সামাজিক দায়বদ্ধতা কার্যক্রম (সিএসআর) ও নারীর ক্ষমতায়ন ইত্যাদি। 

এ স্বীকৃতি আইপিডিসি ফাইন্যান্সের স্থায়িত্ব, ইতিবাচক পরিবর্তন চালনা এবং আর্থিক শিল্পে বেঞ্চমার্ক স্থাপনের প্রতিশ্রুতি প্রতিফলিত করে। বিজ্ঞপ্তি

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন