শনিবার | আগস্ট ১৩, ২০২২ | ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯  

আন্তর্জাতিক ব্যবসা

বিক্রি কমায় করপোরেট কর্মী ছাঁটাই করছে ওয়ালমার্ট

বণিক বার্তা ডেস্ক

মুনাফা কমার পূর্বাভাস দেয়ার এক সপ্তাহ পর করপোরেট কর্মী ছাঁটাইয়ের ঘোষণা দিয়েছে ওয়ালমার্ট। সম্প্রতি মার্কিন খুচরা পণ্য বিক্রেতা প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, মূল্যস্ফীতির কারণে ভোক্তারা অত্যাবশ্যকীয় নয় এমন পণ্য থেকে মুখ ফিরিয়ে নেয়ায় সিদ্ধান্ত।

সিএনবিসির একটি প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রে খাদ্য জ্বালানির দাম বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ক্রেতারা পোশাক বা গৃহস্থালি জিনিসপত্রের দিকে মনোযোগ দিচ্ছেন না। এর চাপ পড়েছে পুরো খুচরা পণ্য সরবরাহ ব্যবস্থায়। অনেক দোকানে স্তূপ হয়ে আছে অবিক্রীত পণ্যে।

ওয়ালমার্টের ছাঁটাইয়ের খবর প্রথম প্রকাশ করে ওয়াল স্ট্রিট জার্নাল। সংবাদমাধ্যমটি জানায়, বিষয়টি এরই মধ্যে বেন্টনভিল, আরকানসাস সদর দপ্তর অন্যান্য করপোরেট অফিসের কর্মীকে অবহিত করা হয়েছে। সিএনবিসিকে দেয়া এক বিবৃতিতে রিটেইল জায়ান্টটি বলছে, একটি শক্তিশালী ভবিষ্যতের জন্য ওয়ালমার্টকে আরো ভালো অবস্থানে নিতে কর্মী ছাঁটাইয়ের মতো পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে।

তবে কতজন কর্মী বাদ পড়ছে বা কোন কোন বিভাগ কাটছাঁটের মুখে পড়বে, নিয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি সংস্থাটির মুখপাত্র অ্যান হ্যাটফিল্ড। উল্টো বলছেন, ব্যবসার কিছু অংশ বাড়ানোর জন্য তারা এখনো কর্মী খুঁজছেন। এর মধ্যে রয়েছে সরবরাহ ব্যবস্থা, -কমার্স, স্বাস্থ্য সুস্থতা বিজ্ঞাপন বিক্রি। ক্রেতা বা গ্রাহক বদলে গিয়েছে উল্লেখ করে অ্যান জানান, তারা প্রতিষ্ঠানটির পুনর্গঠন করছেন।

যুক্তরাষ্ট্রে সবচেয়ে বেশি কর্মী ওয়ালমার্টের। ১৬ লাখ কর্মী বাহিনী নিয়ে প্রতিষ্ঠানটি মার্কিন শ্রমবাজারে এক প্রকার ছড়ি ঘোরায়। অর্থনীতিতে তাদের ভূমিকাও বিশাল। স্বভাবতই গত ২৫ জুলাই যখন প্রান্তিক পুরো বছরের মুনাফার পূর্বাভাসে কাটছাঁটের কথা আসে তখন বিনিয়োগকারীরা আতঙ্কিত হয়ে পড়েন। বিষয়টি খুচরা বিক্রি খাতে বড়সড় প্রভাব ফেলেছে। ম্যাসি অ্যামাজনের মতো কোম্পানির শেয়ার হয়েছে নিম্নমুখী, যা মার্কিন ভোক্তাদের নিয়ে একটি সতর্কবার্তাও।

ওয়ালমার্ট বলছে, সময়ে ভোক্তারা শুধু মুদি জ্বালানির মতো অত্যাবশ্যকীয় পণ্যের জন্য খরচ করছে। তারা পোশাকের মতো উচ্চ মুনাফার পণ্য এড়িয়ে চলছে। এসব পণ্যের বেশি বিক্রির জন্য তাদের দাম কমাতে হবে। আবার একই ক্ষেত্রে টার্গেট বেড বাথ অ্যান্ড বিয়ন্ডের মতো শক্ত প্রতিযোগী রয়েছে বাজারে।

একই সপ্তাহে মুনাফা বিক্রির পূর্বাভাসে বেস্ট বাই জানায়, ভোক্তাদের কাছে ইলেকট্রনিকসের চাহিদা কমে গিয়েছে।

মন্দার উদ্বেগ দীর্ঘস্থায়ী হওয়ায় যুক্তরাষ্ট্রের চাকরির বাজারও বিভক্ত হয়ে পড়েছে। জুনে চাকরির বাজার দ্রুত সংকুচিত হলেও কিছু ক্ষেত্রে প্রতি কর্মীর বিপরীতে দশমিক ৮টি চাকরি ছিল।

মহামারী চলাকালে ফুলেফেঁপে উঠলেও ওয়ালমার্টের প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী অ্যামাজনসহ অনেক প্রতিষ্ঠান কর্মী নিয়োগ থেকে পিছিয়ে এসেছে। বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে বিশ্বব্যাপী অ্যামাজনের ১৫ লাখের বেশি কর্মীর থেকে কমেছে ৯৯ হাজার। কভিড সংকটের সময় তাদের কর্মী প্রায় দ্বিগুণ হয়। সময় অনলাইনে ক্রেতাদের মুদি অন্যান্য চাহিদা সামলাতে হয়েছে।

এছাড়া শপিফাই, রবিনহুডসহ অন্য কিছু প্রতিষ্ঠান সম্প্রতি ছাঁটাইয়ের ঘোষণা দিয়েছে। প্রক্রিয়ার মধ্যে রয়েছে ফেসবুকের মূল প্রতিষ্ঠান মেটা গুগলের অ্যালফাবেট। প্রতিষ্ঠানগুলো বলছে, ধীরে ধীরে কর্মী নিয়োগ দেবে বা বর্তমান বাহিনী নিয়েই অধিক উৎপাদনে মনোযোগ দেবে। বৈশ্বিক অর্থনীতির মন্থরগতিতে একই প্রক্রিয়ার মধ্য দেয়ে যাচ্ছে টেসলা, নেটফ্লিক্স কয়েনবেস গ্লোবালের মতো প্রতিষ্ঠান।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন