রবিবার | আগস্ট ১৪, ২০২২ | ৩০ শ্রাবণ ১৪২৯  

স্বাস্থ্যযত্ন

ডায়াবেটিস

নিয়ন্ত্রণেই মুক্তি

ফিচার ডেস্ক

অনিয়ন্ত্রিত ডায়াবেটিসের প্রভাবে শরীরের এমন কোনো অঙ্গ নেই যেখানে ঝুঁকি থাকে না। বিশেষ করে এটি পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণে না এলে কিডনি, চোখ, মস্তিষ্ক, হার্টের ওপর মারাত্মক প্রভাব ফেলে। কিডনি ডায়ালাইসিস বা প্রতিস্থাপনকারীদের বেশির ভাগই অনিয়ন্ত্রিত ডায়াবেটিসের রোগী। বিশ্বে হার্ট অ্যাটাকে মারা যাওয়াদের অর্ধেকের বেশি অনিয়ন্ত্রিত ডায়াবেটিসের রোগী। একইভাবে রেটিনোপ্যাথি, হাত-পা কেটে ফেলার ক্ষেত্রেও একই পরিস্থিতি দেখা যায়।

বিষয়ে ডায়াবেটিস হরমন বিশেষজ্ঞ ডা. শাহজাদা সেলিম বণিক বার্তাকে বলেন, আক্রান্ত ব্যক্তিদের ডায়াবেটিস যদি এখনই নিয়ন্ত্রণ করা না হয় রক্তে গ্লুকোজের পরিমাণ সাধারণ মাত্রার চেয়ে অনেক বেশি বেড়ে যেতে পারে। এতে তাদের হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসাা নেয়া লাগতে পারে। কোনো কোনো সময় এসব রোগীর অবস্থা এমনও হয় যে তাদের নিবিড় পর্যবেক্ষণ কেন্দ্রে (আইসিইউ) নিতে হয়, এমনকি মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে।

তিনি বলেন, দীর্ঘস্থায়ী জটিলতাগুলো কমানোর জন্য ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে বেশি গুরুত্ব দিতে হবে। এতে চিকিৎসার ব্যয় কমে আসবে। দেশে ডায়াবেটিসের চিকিৎসাা ব্যয় কম হওয়া সত্ত্বেও আক্রান্তদের ৮৫ ভাগেরই এটি নিয়ন্ত্রণে নেই। সচেতন হলে টাইপ- ডায়াবেটিস প্রায় ৫০ ভাগ প্রতিরোধ করা সম্ভব। সুষম খাবার, নিয়মিত ব্যায়াম শারীরিকভাবে সচল থাকা, অতিরিক্ত ওজন কমিয়ে আনলে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে চলে আসতে পারে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন