বুধবার | জুন ২৯, ২০২২ | ১৫ আষাঢ় ১৪২৯  

খবর

আওয়ামী লীগের ৭৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী আজ

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ৭৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী আজ। ১৯৪৯ সালের ২৩ ২৪ জুন পুরান ঢাকার ঐতিহাসিক রোজ গার্ডেন প্রাঙ্গণে এক কর্মী সম্মেলনের মাধ্যমে জন্ম নেয় পূর্ব পাকিস্তান আওয়ামী মুসলিম লীগ প্রথম কমিটিতে মওলানা ভাসানী সভাপতি শামসুল হক সাধারণ সম্পাদক এবং জেলে থাকা অবস্থায় যুগ্ম সম্পাদক নির্বাচিত হন শেখ মুজিবুর রহমান। ১৯৫৫ সালে অনুষ্ঠিত তৃতীয় সম্মেলনে মুসলিম শব্দটি বাদ দিয়ে অসাম্প্রদায়িক রাজনৈতিক সংগঠন হিসেবে আত্মপ্রকাশ করে দলটি।

গতবারের মতো এবারো প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে স্বাস্থ্যবিধি মেনে কর্মসূচি পালনের ঘোষণা করেছে দলটি। দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে ২৩ জুন ভোরে কেন্দ্রীয় কার্যালয় দেশব্যাপী আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে জাতীয় দলীয় পতাকা উত্তোলন, সকাল ৮টায় ধানমন্ডির ৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন অনুষ্ঠিত হবে। এদিন সকাল সাড়ে ১০টায় দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হবে আলোচনা সভা। এতে আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে সভাপতিত্ব করবেন। এছাড়া বেলা ১১টায় টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের একটি প্রতিনিধি দল শ্রদ্ধার্ঘ্য নিবেদন করবে।

দলের ৭৩তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে সীমিত পরিসরে স্বাস্থ্যবিধি মেনে কেন্দ্রীয় কর্মসূচির সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ কর্মসূচি গ্রহণের জন্য সারা দেশের নেতাকর্মীদের আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। পাশাপাশি বিভিন্ন উপযোগী কর্মসূচির মাধ্যমে যথাযথ মর্যাদায় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন করার জন্য আওয়ামী লীগ, সহযোগী ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠনের সব জেলা, উপজেলাসহ সর্বস্তরের নেতা-কর্মী, সমর্থকদের প্রতিও আহ্বান জানান তিনি।

প্রতিষ্ঠালগ্ন থেকেই ধর্মনিরপেক্ষ-অসাম্প্রদায়িক রাজনীতি, বাঙালি জাতীয়তাবাদ, গণতান্ত্রিক সংস্কৃতি, শোষণমুক্ত সাম্যের সমাজ নির্মাণের আদর্শ এবং একটি উন্নত সমৃদ্ধ আধুনিক, প্রগতিশীল সমাজ রাষ্ট্র ব্যবস্থা বিনির্মাণে রাজনৈতিক-অর্থনৈতিক-সামাজিক সাংস্কৃতিক দর্শনের ভিত্তি ধারণ করে আসছে সংগঠনটি। সেই ধারাবাহিকতায় স্বাধীন বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার ক্ষেত্রে মুখ্য ভূমিকায় ছিল ঐতিহ্যবাহী রাজনৈতিক সংগঠনটি।

১৯৮১ সালে আওয়ামী লীগের ১৩তম কাউন্সিল অধিবেশনে সংগঠনের সভাপতি নির্বাচিত হন বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনা। দীর্ঘ ছয় বছরের নির্বাসন শেষে ১৯৮১ সালের ১৭ মে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতি হিসেবে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন করেন তিনি। পরবর্তী সময়ে আওয়ামী লীগকে পুনর্গঠনের মাধ্যমে দীর্ঘ ২১ বছর পর ১৯৯৬ সালের নির্বাচনের মধ্য দিয়ে রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আসে দলটি। এরপর ২০০১ সালের নির্বাচনে আবারো ক্ষমতার বাইরে চলে যায় দলটি। ২০০৮ সালে আবারো ক্ষমতায় আসে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন ১৪ দলীয় জোট। পরবর্তী সময়ে ২০১৪ সালের জানুয়ারি এবং ২০১৮ সালের ৩০ ডিসেম্বর সংসদ নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে টানা তৃতীয়বারের মতো সরকার পরিচালনা করে আসছে দলটি।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন


×