বুধবার | জানুয়ারি ২৬, ২০২২ | ১২ মাঘ ১৪২৮

দেশের খবর

মেয়র আব্বাসের দুটি অবৈধ মার্কেট ভেঙে দিল প্রশাসন

বণিক বার্তা প্রতিনিধি, রাজশাহী

রাজশাহীর কাঁটাখালীতে বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (বিএমডিএ) খালের ওপর নির্মিত পৌরমেয়র আব্বাস আলীর দুটি অবৈধ মার্কেট ভেঙে দিয়েছে প্রশাসন। গতকাল সকাল থেকে উচ্ছেদ অভিযান চালান ভ্রাম্যমাণ আদালত। অভিযানে নেতৃত্ব দেন ভ্রাম্যমাণ আদালতের ম্যাজিস্ট্রেট পবা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) শেখ এহসান উদ্দীন। তিনি জানানভবন উচ্ছেদে গত ১০ অক্টোবর স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় থেকে চিঠি আসে। এরপর মেয়রকে ৩০ দিন আগে উচ্ছেদের নোটিস দেয়া হয়েছিল। কিন্তু তাতে কোনো সাড়া মেলেনি। ফলে ভবন দুটি ভাঙার কাজ শুরু হয়েছে।

জানা গেছে, জলাবদ্ধতা নিরসনে বছরখানেক আগে কাঁটাখালী পৌরসভার ভেতর দিয়ে যাওয়া খালটি পুনঃখনন করে আরসিসি বাঁধাই করে বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ। এতে ব্যয় হয় ১৭ কোটি টাকা। অথচ গত এপ্রিলে ঢাকা-রাজশাহী মহাসড়কে সরকারি খালের ব্রিজের দক্ষিণ প্রান্ত থেকে খালের ওপর প্রায় হাজার ১৪৪ বর্গফুট জায়গা নিয়ে ভবন নির্মাণ শুরু করেন মেয়র আব্বাস।

তিন তলা ভবনে ২১টি দোকান নির্মাণের কথা ছিল। এরই মধ্যে দোতলা করা হয়ে গেছে। ব্রিজের উত্তর পাশে খালের ওপর আরেকটি ভবন নির্মাণ হচ্ছিল। যেখানে ছয়টি দোকান করার কথা ছিল।

পৌরসভার কয়েকজন কাউন্সিলরের অভিযোগের ভিত্তিতে গত আগস্টে পবা উপজেলার ভূমি কর্মকর্তা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট পুলিশসহ ঘটনাস্থলে গিয়ে নির্মাণকাজ বন্ধের নির্দেশ দেন। কয়েক দিন কাজ বন্ধ থাকলেও পরে আবার শুরু হয়। গণমাধ্যমে বিষয়টি প্রকাশ হলে ব্যবস্থা নিতে চিঠি দেয় স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়।

পবা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) শেখ এহসান উদ্দীন বলেন, ভবন উচ্ছেদে গত ১০ অক্টোবর স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয় থেকে চিঠি আসে। এরপর মেয়র আব্বাস আলীকে ৩০ দিন আগে ভবন উচ্ছেদের নোটিস দেয়া হয়। কিন্তু কোনো সাড়া না মেলায় আইনগতভাবে ভবন দুটি উচ্ছেদ করা হচ্ছে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল নিয়ে বিতর্কিত বক্তব্য দেয়ার অভিযোগে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় মেয়র আব্বাস আলী এখন কারাগারে। ছাড়া তিনি একই অভিযোগে পৌর আওয়ামী লীগ থেকে অব্যাহতি পেয়েছেন। তাকে আওয়ামী লীগ থেকে স্থায়ী বহিষ্কারের জন্য জেলা আওয়ামী  এরই মধ্যে কেন্দ্রে সুপারিশ পাঠিয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন