বুধবার | জানুয়ারি ২৬, ২০২২ | ১২ মাঘ ১৪২৮

খবর

দেশের এভিয়েশন খাতে দ্রুত প্রবৃদ্ধি বাড়ছে: বিমান প্রতিমন্ত্রী

নিজস্ব প্রতিবেদক

দেশের এভিয়েশন খাতে দ্রুত প্রবৃদ্ধি বেড়েছে। গত ৫০ বছরে দেশের পর্যটন এভিয়েশন খাতে এসেছে উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে ধারাবাহিক উন্নয়নের মাধ্যমে এভিয়েশন খাত আন্তর্জাতিক মানে উন্নতি লাভ করেছে।

গতকাল হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের ভিভিআইপি টার্মিনালে অনুষ্ঠিত স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী বাংলাদেশের অর্জন শীর্ষক সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব বলেন বেসামরিক বিমান পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী।

তিনি বলেন, দেশের বিদ্যমান তিনটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের পাশাপাশি কক্সবাজার সৈয়দপুর বিমানবন্দরকে আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে উন্নীত করা হচ্ছে। বাড়ছে দেশের আকাশপথের পরিধি। সারা দেশের বিমান পরিবহন, অবকাঠামোর যুগোপযোগী উন্নয়ন করা হচ্ছে। যাত্রীসেবার মান নিশ্চিত করার লক্ষ্যে কাজ চলছে। দেশের এভিয়েশন খাতে দ্রুত প্রবৃদ্ধি বাড়ছে। বর্তমানে তিনটি দেশীয় এয়ারলাইনসে যুক্ত হতে যাচ্ছে আরো দুটি নতুন এয়ারলাইনস। দেশের পর্যটন শিল্পের আয়তন বেড়েছে। পর্যটনের মহাপরিকল্পনা প্রণয়নের কাজ চলছে।

সেমিনারের মুখ্য আলোচক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান স্মৃতি জাদুঘরের কিউরেটর মো. নজরুল ইসলাম খান বলেন, দেশের বড় অগ্রগতি ৫০ বছরে স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশ হয়েছে। বড় বড় প্রকল্প তারই ধারাবাহিকতা। অনেক কিছুই এখন দৃশ্যমান। দেশের এভিয়েশন খাতও অনেক সমৃদ্ধ হয়েছে। যাত্রী সংখ্যা বেড়েছে প্রায় ২২ গুণ। ১৯৮০ সালে দেশের এভিয়েশন খাতের যাত্রী ছিল মাত্র ছয় লাখ। বর্তমানে যাত্রী সংখ্যা প্রায় কোটি ৩৬ লাখ। বাংলাদেশ এখন এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলে ১৩তম বৃহত্তর অর্থনৈতিক সমৃদ্ধ দেশ। উন্নয়নের ধারা গতিশীল থাকলে বাংলাদেশ অচিরেই বিশ্বের বুকে উন্নত সমৃদ্ধ দেশ হিসেবে মাথা উঁচু করে দাঁড়াবে।

অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে আরো উপস্থিত ছিলেন বেসরকারি বিমান পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মোকাম্মেল হোসেন, বেবিচকের সদস্য (প্রশাসন) মো. মিজানুর রহমান, বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশনের চেয়ারম্যান মো. হান্নান মিয়া প্রমুখ।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন