শনিবার | নভেম্বর ২৭, ২০২১ | ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

দেশের খবর

দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌ-রুট

ঘন কুয়াশায় ৩ ঘণ্টা ফেরি চলাচল বন্ধ, দীর্ঘ যানজট

বণিক বার্তা প্রতিনিধি, রাজবাড়ী ও মানিকগঞ্জ

ঘন কুয়াশার কারণে গতকাল দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌ-রুটে ঘণ্টা বন্ধ ছিল ফেরি চলাচল। চলতি বছরে কুয়াশার কারণে এই প্রথম ফেরি চলাচল বন্ধ রাখা হয়। এর আগে মঙ্গলবার মধ্যরাত থেকেই নৌপথে কুয়াশার তীব্রতা বাড়তে থাকে। এতে গতকাল সকাল ৬টার দিকে কুয়াশার ঘনত্ব বেড়ে যায়। ফলে দুর্ঘটনা এড়াতে ফেরি চলাচল বন্ধ করে দেয় বিআইডব্লিউটিসি। সময় যাত্রী যানবাহন নিয়ে মাঝ নদীতে তিনটি পদ্মা নদীর দুই পারে ১২টি ফেরি নোঙর করে। সকাল ৯টার দিকে কুয়াশার ঘনত্ব কিছুটা কমলে আবার ফেরি চলাচল শুরু হয়।

এদিকে ঘণ্টা ফেরি চলাচল বন্ধ, নাব্য ফেরি সংকটের কারণে গতকাল সকাল থেকে বিকাল পর্যন্ত ঘাট এলাকায় সৃষ্টি হয় দীর্ঘ জানজট।

সরেজমিনে গতকাল বেলা ৩টার দিকে দৌলতদিয়া ঘাটে গিয়ে দেখা যায়, সেখানে ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের দৌলতদিয়া জিরো পয়েন্ট থেকে গোয়ালন্দ ফায়ার সার্ভিস স্টেশন পর্যন্ত অন্তত পাঁচ কিলোমিটার এলাকায় দুই সারিতে পারের অপেক্ষায় আটকে ছিল পাঁচ শতাধিক যানবাহন।

এছাড়া দৌলতদিয়া ঘাট থেকে ১২ কিলোমিটার পেছনে গোয়ালন্দ মোড় এলাকায় এক সারিতে দুই কিলোমিটার এলাকায় আরো অন্তত ২০০ পণ্যবাহী ট্রাক পারের অপেক্ষায় ছিল।

ফরিদপুর থেকে ছেড়ে আসা গোল্ডেন লাইন পরিবহনের সুপারভাইজার আবু নাছির বলেন, দৌলতদিয়া ঘাটের ভোগান্তি সারা বছরের, যা বলে বোঝানো যাবে না। রাত ১২টা থেকে বেলা ৩টা পর্যন্ত ঘাটেই বসে আছি। এখন অনেক যাত্রী বাস থেকে নেমে চলে গেছেন। আমাদের কিছুই করার নেই। মানুষের ভোগান্তি দেখার কেউ নেই।

বিআইডব্লিউটিসি দৌলতদিয়া ঘাটের ব্যবস্থাপক শিহাব উদ্দিন জানান, গতকাল ভোর থেকে কুয়াশার ঘনত্ব বাড়ে। এতে দুর্ঘটনা এড়াতে সকাল ৬টা-৯টা পর্যন্ত ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। ঘণ্টা ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় ঘাটে জানজট তৈরি হয়েছে। এটি প্রাকৃতিক দুর্যোগ। আমাদের করার কিছুই নেই। তবে ফেরি চলাচল শুরুর পর অগ্রাধিকার ভিত্তিতে যাত্রীবাহী যানবাহন পারাপার করা হচ্ছে।

এদিকে ফেরি চলাচল বন্ধ থাকায় পদ্মার মানিকগঞ্জের পারে পাটুরিয়া ঘাটেও আটকে পড়ে কয়েকশ যানবাহন।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন