রবিবার | নভেম্বর ২৮, ২০২১ | ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

শেয়ারবাজার

বিএটিবিসির মুনাফা বেড়েছে ৩২%

নিজস্ব প্রতিবেদক

পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো বাংলাদেশ কোম্পানি (বিএটিবিসি) লিমিটেডের মুনাফা বেড়েছে। চলতি ২০২১ হিসাব বছরের তিন প্রান্তিকে (জানুয়ারি-সেপ্টেম্বর) কর-পরবর্তী নিট মুনাফা বেড়েছে ৩২ শতাংশের বেশি। আলোচ্য সময়ে কোম্পানিটির আয়ও বেড়েছে প্রায় ২০ শতাংশ।

সর্বশেষ আর্থিক প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, চলতি হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকে কোম্পানিটির আয় হয়েছে ২৪ হাজার ৪৪৩ কোটি টাকা। যেখানে আগের হিসাব বছরের একই সময়ে আয় ছিল ২০ হাজার ৩৮০ কোটি টাকা। সেই হিসাবে আলোচ্য সময়ে কোম্পানিটির আয় বেড়েছে হাজার ৬৩ কোটি টাকা বা ১৯ দশমিক ৯৪ শতাংশ। তিন প্রান্তিকে কর-পরবর্তী নিট মুনাফা হয়েছে হাজার ১৫৬ কোটি টাকা। যেখানে আগের হিসাব বছরের একই সময়ে মুনাফা ছিল ৮৭২ কোটি টাকা। সেই হিসাবে আলোচ্য সময়ে নিট মুনাফা বেড়েছে ২৮৪ কোটি টাকা বা ৩২ দশমিক ৫৯ শতাংশ।

তিন প্রান্তিকে শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ২১ টাকা ৪১ পয়সা, আগের হিসাব বছরের একই সময় যা ছিল ১৬ টাকা ১৫ পয়সা। ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২১ শেষে কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ৭৪ টাকা ৩৮ পয়সা, আগের হিসাব বছরের একই সময় শেষে যা ছিল ৬৯ টাকা ১০ পয়সা।

অন্যদিকে তৃতীয় প্রান্তিকে (জুলাই-সেপ্টেম্বর) আয় হয়েছে হাজার ৩৫৯ কোটি টাকা। আগের হিসাব বছরের একই সময়ে যা ছিল হাজার ৫৬৩ কোটি টাকা। সেই হিসাবে আলোচ্য সময়ে আয় বেড়েছে প্রায় ৭৯৬ কোটি টাকা বা ১৪ দশমিক ৩০ শতাংশ। তৃতীয় প্রান্তিকে কর-পরবর্তী নিট মুনাফা হয়েছে ২৯৪ কোটি টাকা। যেখানে আগের হিসাব বছরে মুনাফা ছিল প্রায় ২৭২ কোটি টাকা। আলোচ্য সময়ে ইপিএস হয়েছে টাকা ৪৫ পয়সা, আগের হিসাব বছরে যা ছিল টাকা পয়সা।

এদিকে চলতি হিসাব বছরের তিন প্রান্তিকের আর্থিক প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করে ১২৫ শতাংশ অন্তর্বর্তী নগদ লভ্যাংশ ঘোষণা দিয়েছে বিএটিবিসি।  লভ্যাংশ নির্ধারণ-সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট ধরা হয়েছে আগামী ১৬ নভেম্বর।

৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০২০ হিসাব বছরে শেয়ারহোল্ডারদের জন্য ৫০০ শতাংশ চূড়ান্ত লভ্যাংশ দিয়েছে বিএটিবিসি। এর মধ্যে ৩০০ শতাংশ নগদ আর ২০০ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ। এর আগে সমাপ্ত হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকের আর্থিক প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করে কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের ৩০০ শতাংশ অন্তর্বর্তী নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল। সব মিলিয়ে ওই হিসাব বছরের জন্য ৮০০ শতাংশ লভ্যাংশ পেয়েছেন কোম্পানিটির শেয়ারহোল্ডাররা।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন

×