সোমবার | নভেম্বর ২৯, ২০২১ | ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

পণ্যবাজার

শেষ প্রান্তিকে থাইল্যান্ডের চাল রফতানি বৃদ্ধির প্রত্যাশা

বণিক বার্তা ডেস্ক

বছরের শেষ প্রান্তিকে (অক্টোবর-ডিসেম্বর) চাল রফতানি বাড়বে এমন প্রত্যাশা থাইল্যান্ডের। দেশটির মুদ্রা বাথের বিনিময়মূল্য কমে যাওয়ায় ক্রেতাদের কাছে থাই চাল আরো বেশি আকর্ষণীয় হয়ে উঠেছে। বিশ্ববাজারে বাড়ছে চাহিদা। খবর ব্যাংকক পোস্ট।

বৈদেশিক বাণিজ্য বিভাগের মহাপরিচালক কিরিতি রুশচানো বলেন, জুনের পর থেকেই থাইল্যান্ডের চাল রফতানি বাড়তে শুরু করে। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি ক্রয় করেছে চীন, ফিলিপাইন, ক্যামেরুন, মালয়েশিয়া, মোজাম্বিক সিঙ্গাপুর।

তিনি বলেন, শেষ প্রান্তিকে চাল রফতানি ধারাবাহিকভাবে বাড়ার প্রত্যাশা রয়েছে। প্রতি মাসে সাত লাখ টনেরও বেশি চাল রফতানি হতে পারে। সেপ্টেম্বরের রফতানি ছাড়পত্রের তথ্যের ভিত্তিতে তথ্য জানান কিরিতি রুশচানো।

ব্যাংকক পোস্টের প্রতিবেদন বলছে, -১৮ অক্টোবরের মধ্যে চাল রফতানি প্রায় ১২৫ শতাংশ বেড়ে লাখ ৭৭ হাজার ৫৫৫ টনে উন্নীত হয়েছে।

চলতি বছরের প্রথম আট মাসে থাইল্যান্ড ৩১ লাখ ৮০ হাজার টন চাল রফতানি করে। গত বছরের একই সময়ের তুলনায় রফতানি ১৪ শতাংশ কমেছে। তবে রফতানিতে শেষ প্রান্তিকে ঘুরে দাঁড়াচ্ছে দেশটি। কিরিতি রুশচানো বলেন, সংকট সত্ত্বেও আমরা প্রত্যাশা করছি, চলতি বছর সব মিলিয়ে ৬০ লাখ টন চাল রফতানি করতে সক্ষম হবে থাইল্যান্ড। এক্ষেত্রে মুদ্রার মান এবং শিথিল হওয়া বিধিনিষেধ আমাদের সুবিধা দিচ্ছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন

×