সোমবার | জুন ২৭, ২০২২ | ১২ আষাঢ় ১৪২৯  

খবর

বিডিসিএসওর বার্ষিক সম্মেলনে বক্তারা

উন্নয়ন টেকসই করতে নাগরিক সমাজের সম্পৃক্ততা জরুরি

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশের উন্নয়নকে অধিকতর কার্যকর টেকসই করতে উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে নাগরিক সমাজ সংগঠনগুলোর সক্রিয় অংশগ্রহণ অপরিহার্য বলে মতপ্রকাশ করেছে নাগরিক সমাজ। গতকাল বাংলাদেশ এনজিও-সিএসও কো-অর্ডিনেশন প্রসেসের (বিডিসিএসও প্রসেস) বার্ষিক সম্মেলনে বক্তারা এসব কথা বলেন।

স্থানীয় জাতীয় প্রায় ৬০০ এনজিও-সিএসওর নেটওয়ার্কটি গতকাল থেকে তিন দিনব্যাপী বার্ষিক সম্মেলন শুরু করেছে। গতকাল সম্মেলনের প্রথম দিন আয়োজিত অধিবেশনের শিরোনাম ছিল, স্থানীয় নাগরিক সমাজ: কেন এবং কীভাবে তৃতীয় একটি খাত হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হতে পারে?

অধিবেশনে সভাপতিত্ব করেন বিশিষ্ট অর্থনীতিবিদ এবং পল্লী কর্ম-সহায়ক ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান . কাজী খলীকুজ্জমান আহমদ। কোস্ট ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক রেজাউল করিম চৌধুরীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত অধিবেশনে প্রধান অতিথি হিসেবে যোগ দেন এনজিও-বিষয়ক ব্যুরোর মহাপরিচালক কেএম তারিকুল ইসলাম। এতে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন অর্থ মন্ত্রণালয়ের ডেভেলপমেন্ট ইফেকটিভনেস উইংয়ের উপসচিব আবুল কালাম আজাদ, ইউএনডিপির সুদীপ্ত মুখার্জি এবং ক্রিশ্চিয়ান এইডের মিশেল মৌসুলম্যান। অনুষ্ঠানে নির্ধারিত আলোচক হিসেবে আরো বক্তব্য রাখেন এনআরডিএস সুপ্রর আবদুল আওয়াল, বিইউপির ফয়জুল্লাহ চৌধুরী, দুর্যোগ ফোরামের নাইম গওহর ওয়াহরা, রূপান্তরের রফিকুল ইসলাম খোকন, উদয়ন বাংলাদেশের শেখ আসাদুজ্জামান, ইএলএলএমএর জেসমিন সুলতানা পারু।

কাজী খলীকুজ্জমান আহমদ বলেন, উন্নয়ন কিন্তু হয় স্থানীয় পর্যায়ে। স্থানীয় প্রশাসন স্থানীয় সরকারের পাশাপাশি তাই সেই উন্নয়নকে টেকসই করতে স্থানীয় নাগরিক সমাজকে সম্পৃক্ত করতে হবে। স্থানীয় এনজিও-সিএসওগুলো কিন্তু স্বচ্ছ জবাবদিহির সঙ্গে কাজ করছে, কিন্তু এক্ষেত্রে আমাদের আরো অনেক কাজ করতে হবে। শুধু নিজের প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নের কথা চিন্তা না করে সবার মর্যাদাপূর্ণ অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে হবে।

কেএম তরিকুল ইসলাম বলেন, অনেক সীমাবদ্ধতা থাকা সত্ত্বেও বিশেষ করে তৃণমূল পর্যায়ে প্রান্তিক মানুষের উন্নয়নে এনজিওগুলো বেশ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। সরকারের পাশাপাশি এনজিও-সিএসওগুলো উন্নয়নের ক্ষেত্রে পরিপূরক ভূমিকা পালন করছে। নাগরিক সমাজ একদিকে যেমন নাগরিকের কাছে সরকারের বার্তা পৌঁছবে, অন্যদিকে নাগরিকের কথাগুলোও সরকারের কাছে তুলে ধরবে। নাগরিক সমাজেরও নিজেদের যথেষ্ট প্রস্তুতি নিতে হবে, গড়ে তুলতে হবে সক্ষমতা।

মাইকেল  মৌসুলম্যান বলেন, স্থানীয় নাগরিক সমাজ কাজ করে স্থানীয় মানুষের সঙ্গে, স্থানীয় মানুষের কাছেই স্থানীয় সংগঠনগুলো জবাবদিহি করে। তাই স্থানীয় সংগঠন স্থানীয় জনগোষ্ঠীর কথাগুলো তুলে ধরতে এবং এভাবে সরকারের জবাবদিহি নিশ্চিত করতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন


×