শনিবার | অক্টোবর ২৩, ২০২১ | ৭ কার্তিক ১৪২৮

পণ্যবাজার

চিনির বৈশ্বিক উৎপাদন বৃদ্ধির পূর্বাভাস

বণিক বার্তা ডেস্ক

অনুকূল আবহাওয়ায় শীর্ষ দেশগুলোতে আখের ফলন ভালো হয়েছে ছবি: এপি

চলতি বছরের শুরু থেকে বিশ্বজুড়ে চিনি উৎপাদন নিয়ে তীব্র উদ্বেগ দেখা দেয় শীর্ষ উৎপাদক দেশ ব্রাজিলে বৈরী আবহাওয়ার কারণে উৎপাদন ঘাটতি বিশ্ববাজারে মাথাব্যথার কারণ হয়ে দাঁড়ায় ফলে হু হু করে বাড়তে থাকে ভোগ্যপণ্যটির দাম তবে বছরের দ্বিতীয়ার্ধে এসে উৎপাদন নিয়ে আশার আলো দেখছেন বাজারসংশ্লিষ্টরা চলতি বছর চিনির বৈশ্বিক উৎপাদন লক্ষণীয় মাত্রায় বৃদ্ধির পূর্বাভাস মিলেছে

মার্কিন কৃষি বিভাগের (ইউএসডিএ) দেয়া তথ্যের ভিত্তিতে চিনি উৎপাদন নিয়ে পূর্বাভাস দিয়েছে পণ্যবাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান ইনডেক্সবক্স এতে বলা হয়, ২০২১ সালে বিশ্বজুড়ে ১৯ কোটি ৩০ লাখ টন চিনি উৎপাদন হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে গত বছরের তুলনায় উৎপাদন শতাংশ বাড়বে

ইনডেক্সবক্সের বিশ্লেষণ বলছে, বছর ইতিহাসের সবচেয়ে ভয়াবহ খরা তীব্র তুষারপাতের কবলে বিপর্যস্ত হয় ব্রাজিলের চিনি উৎপাদন খাত কারণে বছর শেষে উৎপাদন সরবরাহ ঘাটতির আশঙ্কা দেখা দেয় চিনির বিশ্ববাজারে যখন প্রবল অস্থিরতা বিরাজ করছিল তখনই স্বস্তির বার্তা নিয়ে আসে থাইল্যান্ড, ভারত চীনসহ অন্যান্য শীর্ষ চিনি উৎপাদনকারী দেশ এসব দেশের ঊর্ধ্বমুখী উৎপাদন বছর শেষে চিনির বৈশ্বিক উৎপাদনে ইতিবাচক প্রভাব ফেলবে ফলে বিশ্ববাজারে স্থিতি ফিরবে বলে আশা করছেন বিশেষজ্ঞরা

ব্রাজিল ছাড়া বেশির ভাগ শীর্ষ চিনি উৎপাদনকারী দেশ চলতি বছর অনুকূল আবহাওয়ার সুবিধা পেয়েছে বিষয়কেই মূলত উৎপাদন বৃদ্ধির অন্যতম কারণ হিসেবে দেখছেন বিশ্লেষকরা এদিকে শুধু উৎপাদন নয়, বরং চিনির বৈশ্বিক সরবরাহ ঘাটতির আশঙ্কাও তীব্র করে তুলছিল ব্রাজিলের নিম্নমুখী উৎপাদন এক্ষেত্রেও ভারসাম্য এনেছে থাইল্যান্ড চলতি বছর দেশটির চিনি রফতানি বৃদ্ধির সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে এর প্রভাবে চিনির বৈশ্বিক রফতানি দশমিক শতাংশ বাড়তে পারে বলে জানায় ইনডেক্সবক্স ঊর্ধ্বমুখী রফতানির কারণে আগামী দুই বছর চিনির দাম স্থিতিশীল থাকবে

ইনডেক্সবক্সের প্রতিবেদনে বলা হয়, মহামারীর ধকল সামলে বিশ্বের অর্থনীতি ঘুরে দাঁড়াচ্ছে তুলনামূলকভাবে স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরছে খাদ্য সেবা খাতে কারণে বিশ্বব্যাপী চিনির চাহিদা বাড়ছে বিশেষ করে চীন ভারতে ভোগ্যপণ্যটির চাহিদায় উল্লম্ফন দেখা দিয়েছে ঊর্ধ্বমুখী চাহিদায় সাড়া দিতে চিনি উৎপাদন ধারাবাহিকভাবে বাড়াচ্ছে শীর্ষ দেশগুলো

বছর যুক্তরাষ্ট্রের চিনি উৎপাদন গত বছরের সমপর্যায়ে থাকবে উৎপাদনের পরিমাণ দাঁড়াবে ৮৭ লাখ টনে বাজারসংশ্লিষ্টরা জানান, সম্প্রতি লুইজিয়ানা অঙ্গরাজ্যে হারিকেন আইডার প্রভাবে আখ উৎপাদন ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ফলে আখ থেকে চিনি উৎপাদন কমতে পারে কিন্তু বিট ফল থেকে চিনি উৎপাদনে উল্লম্ফন ঘাটতি পুষিয়ে দেবে

এদিকে দীর্ঘস্থায়ী খরার কারণে মেক্সিকোতে চিনি উৎপাদন কিছুটা কমে ৭৫ লাখ টনে পৌঁছবে তবে অনুকূল আবহাওয়ার কারণে অস্ট্রেলিয়ার উৎপাদনে দশমিক শতাংশের বেশি প্রবৃদ্ধি আসতে পারে বছর শেষে দেশটি সব মিলিয়ে ৪৬ লাখ টন চিনি উৎপাদনে সক্ষম হবে বলে জানায় ইনডেক্সবক্স

এদিকে শুষ্ক আবহাওয়া দাবানলের কারণে চলতি বছর ব্রাজিলের উৎপাদন শতাংশ কমতে পারে দেশটির বার্ষিক উৎপাদন দাঁড়াবে কোটি ৬০ লাখ টনে

চলতি বছর চিনি উৎপাদনে সবচেয়ে বড় সাফল্য পেতে যাচ্ছে থাইল্যান্ড দেশটির উৎপাদন গত বছরের তুলনায় ৩৯ শতাংশ বেড়ে কোটি ৫০ লাখ টনে পৌঁছতে পারে ভারতের উৎপাদন শতাংশ বেড়ে কোটি ৬০ লাখ টনে উন্নীত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে এদিকে ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোর উৎপাদন শতাংশ বেড়ে কোটি ৯০ লাখ টনে পৌঁছবে

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন