শনিবার | সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২১ | ১০ আশ্বিন ১৪২৮

খবর

ফকির আলমগীরের মৃত্যু

স্পিকার, ডেপুটি স্পিকার ও মন্ত্রিপরিষদ সদস্যদের শোক

নিজস্ব প্রতিবেদক

বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের স্পিকার . শিরীন শারমিন চৌধুরী স্বাধীন বাংলা বেতার কেন্দ্রের শব্দসৈনিক, একুশে পদকপ্রাপ্ত বিশিষ্ট গণসংগীতশিল্পী ফকির আলমগীরের মৃত্যুতে গভীর শোক দুঃখ প্রকাশ করেছেন। গতকাল এক শোকবার্তায় স্পিকার মরহুমের রুহের মাগফিরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

এছাড়া শোক জানিয়েছেন ডেপুটি স্পিকার মো. ফজলে রাব্বী মিয়া এবং চিফ হুইপ নূর--আলম চৌধুরী গভীর শোক দুঃখ প্রকাশ করেছেন।

এছাড়া ফকির আলমগীরের মৃত্যুতে মন্ত্রী প্রতিমন্ত্রীরা গভীর শোক দুঃখ প্রকাশ করেছেন। পৃথক শোকবার্তায় তারা ফকির আলমগীরের মাগফিরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

গভীর শোক দুঃখ প্রকাশ করেছেন মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী মোজাম্মেল হক; কৃষিমন্ত্রী . মো. আবদুর রাজ্জাক; তথ্য সম্প্রচারমন্ত্রী . হাছান মাহমুদ; আইনমন্ত্রী আনিসুল হক; স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম; পররাষ্ট্রমন্ত্রী . কে আব্দুল মোমেন; শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূন; বস্ত্র পাটমন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বীরপ্রতীক; স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক; খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার; সমাজকল্যাণমন্ত্রী নুরুজ্জামান আহমেদ; মৎস্য প্রাণিসম্পদমন্ত্রী রেজাউল করিম; পরিবেশমন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন; ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী; রেলপথমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন; বিজ্ঞান প্রযুক্তিমন্ত্রী স্থপতি ইয়াফেস ওসমান; ডাক টেলিযোগাযোগমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার; প্রবাসীকল্যাণমন্ত্রী ইমরান আহমদসহ প্রতিমন্ত্রী উপমন্ত্রীরা।

শোকবার্তায় তারা জানান, ফকির আলমগীর স্বাধীনতার পর পাশ্চাত্য সংগীতের সঙ্গে দেশজ সুরের মেলবন্ধন ঘটিয়ে বাংলা পপসংগীতের বিকাশে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন। ৬৯-এর গণঅভ্যুত্থান, ৭১-এর মহান মুক্তিযুদ্ধসহ বিভিন্ন গণতান্ত্রিক আন্দোলনে তার গান দেশের সাধারণ মানুষকে উজ্জীবিত করেছে। মহান স্বাধীনতা আন্দোলন গণসংগীতে তার অবদান চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবে বলে মন্ত্রী প্রতিমন্ত্রীরা পৃথক শোকবার্তায় উল্লেখ করেন।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন