শনিবার | মে ১৫, ২০২১ | ১ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

শেষ পাতা

মেট্রোরেলের লাইন ধসে মেক্সিকোতে অন্তত ২৩ জনের মৃত্যু

বণিক বার্তা ডেস্ক

মেক্সিকোর রাজধানী মেক্সিকো সিটিতে একটি মেট্রো ট্রেনসহ ওভারপাস লাইন ধসে কমপক্ষে ২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। নিহতদের মধ্যে কয়েকটি শিশুও রয়েছে। সময় অন্তত ৭৯ জন আহত হয়েছে। খবর ব্লুমবার্গ বিবিসি।

স্থানীয় সময় সোমবার রাত ১০টার (বাংলাদেশ সময় গতকাল সকাল ৯টা) দিকে অলিভস স্টেশনের কাছে ১২ নম্বর মেট্রো লাইনের একটি গার্ডার ধসে দুর্ঘটনা ঘটে। গণমাধ্যমে প্রকাশিত ছবি থেকে দেখা যায়, ব্যস্ত সড়কের ওপর ওভারপাসটি ধসে পড়েছে এবং ট্রেনটির দুটি বগি সেখান থেকে ঝুলে আছে।

শহরটির মেয়র ক্লডিয়া শেইনবাওম জানান, ঘটনা তদন্তে একটি আন্তর্জাতিক সংস্থা অ্যাটর্নি জেনারেলের অফিসকে দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। তিনি বলেন, ঠিক কে বা কারা দুর্ঘটনার জন্য দায়ী, সেটা আমরা খুঁজে বের করব।

মেক্সিকোর মেট্রো ব্যবস্থা পৃথিবীর ব্যস্ততম গণপরিবহনগুলোর একটি। প্রতিদিন ৫০ লাখ মানুষ মেট্রো সার্ভিস ব্যবহার করে। ২০১২ সালের অক্টোবরে ১২ নম্বর লাইনটিতে ট্রেন চলাচল শুরু হয়। সে হিসেবে এটি সবচেয়ে নতুন লাইন। আর এটিতেই প্রথমবারের মতো গার্ডার ধসের মতো দুর্ঘটনা ঘটল।

একজন প্রত্যক্ষদর্শী জানিয়েছেন, হঠাৎ করে মেট্রোলাইনটি কেঁপে উঠতে দেখতে পান তিনি। এর পরই বিকট শব্দে আওয়াজ শোনা যায় এবং পুরো জায়গা ধুলায় ঢেকে যায়। তিনি বলেন, মেট্রোর ভেতর থেকে কোনো আওয়াজ আসছিল না। সম্ভবত এর যাত্রীরা আতঙ্কে নির্বাক হয়ে গিয়েছিল।

ট্রেনটির এক যাত্রী বলেন, আমাদের মনে হলো জোরে বজ্রপাতের মতো আওয়াজ হলো আর সবকিছু ভেঙে পড়ল। ট্রেনের ভেতরে অনেকেই দাঁড়িয়ে ছিলেন। যখন ট্রেনটি নিচে পড়ল তখন বসে দাঁড়িয়ে থাকা যাত্রীদের মাথা মেঝের সঙ্গে বাড়ি খাচ্ছিল। প্রাথমিক অবস্থায় তারা বুঝেই উঠতে পারছিলেন না যে কী হচ্ছে।

দেশটির বর্তমান পররাষ্ট্রমন্ত্রী মারসেলো ইবরার্ড মেয়র থাকাকালে ১২ নম্বর মেট্রো লাইনটি তৈরি করা হয়। সে সময় এর গুণগত মান নিয়েও প্রশ্ন ওঠে। এটি তৈরিতে প্রয়োজনের চেয়ে বেশি সময় লেগেছিল। এর নকশায় কিছু সমস্যা ছিল বলেও জানা যায়।

এর আগে গত বছর দুটি মেট্রোর মধ্যে সংঘর্ষে একজন নিহত ৪০ জন আহত হয়। ১৯৭৫ সালে মাটিতে চলা দুটি ট্রেনের সংঘর্ষে ৩১ জনের মৃত্যু হয়।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন