শুক্রবার | মে ০৭, ২০২১ | ২৩ বৈশাখ ১৪২৮

টেলিকম ও প্রযুক্তি

প্রথম প্রান্তিকে চীনে হুয়াওয়ের স্মার্টফোন বিক্রি অর্ধেক কমেছে

বণিক বার্তা ডেস্ক

একসময়ের বিশ্বের শীর্ষ স্মার্টফোন ব্র্যান্ড হুয়াওয়ের স্মার্টফোন বিক্রি খোদ চীনেই অর্ধেক কমেছে। মার্কিন নিষেধাজ্ঞায় এর সাপ্লাই চেইন যে মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে চীনের বাজারে গত প্রান্তিকে বিক্রি হ্রাসে তা স্পষ্ট হয়ে উঠেছে। বিশ্বের অন্যান্য স্মার্টফোন ব্র্যান্ডের বিক্রি বেশ চাঙ্গা থাকলেও পিছিয়ে গেল হুয়াওয়ে। খবর রয়টার্স।

গবেষণা প্রতিষ্ঠান ক্যানালিস বলছে, মার্চে শেষ হওয়া সর্বশেষ প্রান্তিকে চীনের বাজারে কোটি ৪৯ লাখ হ্যান্ডসেট বিক্রি করেছে হুয়াওয়ে। গত বছরের একই প্রান্তিকে যেখানে কোটি লাখ বিক্রি করেছিল চীনভিত্তিক প্রযুক্তি জায়ান্টটি। গত বছর যেখানে হুয়াওয়ের বাজার শেয়ার ছিল ৪১ শতাংশ তা বর্তমানে ১৬ শতাংশে নেমে এসেছে। বেশ কয়েক বছর চীনের বাজারে শীর্ষস্থান ধরে রাখা স্মার্টফোন ব্র্যান্ডটিকে হটিয়ে প্রথম দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে ভিভো অপো। হুয়াওয়ে যেখানে শীর্ষস্থান থেকে তৃতীয় স্থানে নেমে এসেছে, সেখানে ভিভো অপোর বিক্রি বেড়েছে যথাক্রমে ৭৯ শতাংশ ৬৫ শতাংশ। প্রথম প্রান্তিকে ভিভোর বিক্রি ছিল কোটি ১৬ লাখ ইউনিট এবং অপোর কোটি লাখ ইউনিট।

গত বুধবার হুয়াওয়ে স্বীকার করে, প্রথম প্রান্তিকে তাদের আয় কমেছে ১৬ দশমিক শতাংশ। স্মার্টফোন বিক্রিতে পতনের ফলে মোট আয়ে প্রভাব পড়েছে। বিপরীতে চীনের সার্বিক স্মার্টফোন বাজার মহামারী-পূর্ব সময়ের মাত্রায় পৌঁছেছে। গত বছরের একই প্রান্তিকের তুলনায় দেশটিতে স্মার্টফোন বিক্রি বেড়েছে ২৪ শতাংশ। শাওমির স্মার্টফোন বিক্রি ৭৫ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে কোটি ৩৫ লাখ ইউনিটে। অন্যদিকে ফাইভজি সংবলিত আইফোন ১২ সিরিজের শক্তিশালী চাহিদার জেরে চীনের বাজারে অ্যাপলের বিক্রি ৪৯ শতাংশ বেড়ে দাঁড়িয়েছে কোটি ২০ লাখ ইউনিট।

বৈশ্বিক স্মার্টফোন বাজারে হুয়াওয়ের উত্থানটা দারুণ ছিল। খুব স্বল্প সময়ের জন্য স্যামসাং অ্যাপলের মতো দৃঢ় প্রতিদ্বন্দ্বীকে পেছনে ফেলে দখলে নিতে সক্ষম হয়েছিল স্মার্টফোন বাজারের শীর্ষ অবস্থান। যুক্তরাষ্ট্র-চীনের বাণিজ্য বিরোধের সবচেয়ে বড় ভুক্তভোগী স্টার স্মার্টফোন ব্র্যান্ডটির পতন ঘটতে চলেছে।

বৈশ্বিক স্মার্টফোন বাজারে ডিভাইস উৎপাদন সরবরাহ বিবেচনায় শীর্ষস্থান হারিয়ে গত বছর তৃতীয় অবস্থানে জায়গা পেয়েছে ব্র্যান্ডটি। আর চলতি বছর হুয়াওয়ের অবস্থান সপ্তমে নেমে যাবে। চলতি বছরের শুরুতে এমনই এক পূর্বাভাস দিয়েছিল বাজার গবেষণা প্রতিষ্ঠান ট্রেন্ডফোর্স।

ট্রেন্ডফোর্সের প্রতিবেদন অনুযায়ী, সামগ্রিকভাবে চলতি বছর বৈশ্বিক স্মার্টফোন বাজারের ৮০ শতাংশ দখলে নিয়ে শীর্ষ পাঁচে থাকবে স্যামসাং, অ্যাপল, শাওমি, অপো ভিভো। মার্কিন রফতানি নিষেধাজ্ঞায় পড়ে নিজেদের ডিভাইস উৎপাদনের সরঞ্জাম সংকটে পড়েছে হুয়াওয়ে। বাধ্য হয়ে সাশ্রয়ী স্মার্টফোন উৎপাদনের সাব-বিভাগ অনার বিক্রি করে দেয় প্রতিষ্ঠানটি। এর ফলে সাশ্রয়ী স্মার্টফোন বাজারে আধিপত্য হারাচ্ছে হুয়াওয়ে।

বিশ্বের শীর্ষ টেলিকম নেটওয়ার্ক সরঞ্জাম নির্মাতা হুয়াওয়ে। শুধু তা- নয়, গত বছরের শুরুর দিকে বিশ্বের শীর্ষ স্মার্টফোন নির্মাতার তকমাটিও দখলে নেয় প্রতিষ্ঠানটি। তবে যুক্তরাষ্ট্র-চীনের বাণিজ্য বিরোধের জেরে প্রতিষ্ঠানটির কনজিউমার ব্যবসা বিভাগ তীব্র চাপের মুখে রয়েছে। হুয়াওয়ের প্রবৃদ্ধি অনেকটাই স্থবির হয়ে পড়েছে। মার্কিন নিষেধাজ্ঞার কবলে পড়ে প্রতিষ্ঠানটির নিজস্ব ডিভাইস উৎপাদন কার্যক্রমও ব্যাহত হচ্ছে। যুক্তরাষ্ট্রে কালো তালিকাভুক্ত হওয়ায় প্রয়োজনীয় চিপ প্রযুক্তি সংকটে রয়েছে প্রতিষ্ঠানটি। পরিস্থিতিতে অনেকটা নীরবে বিশ্বের কিছু বাজার থেকে ডিভাইস ব্যবসা গুটিয়ে নিতে শুরু করেছে প্রতিষ্ঠানটি। শুরুতে সাব-ব্র্যান্ড অনার স্মার্টফোন ব্যবসা বিভাগের আংশিক বিক্রির ইচ্ছা প্রকাশ করলেও সর্বশেষ পুরো বিভাগটিই বেঁচে দেয় প্রতিষ্ঠানটি।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন