শুক্রবার | মে ০৭, ২০২১ | ২৩ বৈশাখ ১৪২৮

খবর

কৃষি ঋণের সুদ ৮ শতাংশের বেশি নয়

বণিক বার্তা অনলাইন

দেশের কৃষি ও পল্লী ঋণের সর্বোচ্চ সুদহার পুনঃনির্ধারণ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এতোদিন ব্যাংক থেকে নেয়া কৃষি ঋণের সর্বোচ্চ সুদ ছিল ৯ শতাংশ। জাতীয় অর্থনীতিতে কৃষি খাতের অবদান বিবেচনায় সুদহার ১ শতাংশ কমিয়ে সর্বোচ্চ ৮ শতাংশে নির্ধারণ করা হয়েছে। 

১ এপ্রিল থেকে কৃষি ঋণের নতুন সুদহার কার্যকর হবে। বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে জারিকৃত এক প্রজ্ঞাপনে এ নির্দেশনা দেয়া হয়। প্রজ্ঞাপনের কপি দেশের সব তফসিলি ব্যাংকের শীর্ষ নির্বাহীর কাছে পাঠানো হয়েছে।

ব্যাংকগুলো যাতে বাধ্যতামূলকভাবে কৃষি খাতে ঋণ বিতরণ করে, এজন্য অর্থবছরের শুরুতে কৃষি ঋণ নীতিমালা ঘোষণা করে বাংলাদেশ ব্যাংক। চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরের জন্য ঘোষিত নীতিমালায় কৃষি খাতে ২৬ হাজার ২৯২ কোটি টাকা ঋণ বিতরণের লক্ষ্য নির্ধারণ করে দেয়া হয়। কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পরিসংখ্যান বলছে, অর্থবছরের প্রথম সাত মাসে (জুলাই-জানুয়ারি) লক্ষ্যমাত্রার ৫৩ দশমিক ৮১ শতাংশ ঋণ বিতরণ করা হয়েছে। চলতি বছরের জানুয়ারি শেষে দেশের কৃষি খাতে বিতরণকৃত ঋণ স্থিতির পরিমান ছিল ৪৪ হাজার ৩২১ কোটি টাকা।

তবে কৃষি ঋণের সর্বোচ্চ সুদহার বেঁধে দেয়ার কার্যকর সুফল পাচ্ছেন না দেশের প্রান্তিক কৃষকরা। দেশের সরকারি-বেসরকারি ও বিদেশী ব্যাংকগুলো কৃষি ঋণের ৭৫ শতাংশই এনজিওর মাধ্যমে বিতরণ করে। এক্ষেত্রে ব্যাংকগুলো ৯ শতাংশ সুদে এনজিওকে ঋণ দেয়। এনজিওগুলো সে ঋণ ২০ শতাংশের বেশি সুদে প্রান্তিক কৃষকদের মাঝে বিতরণ করে। গত কয়েক বছর ধরে ব্যাংকগুলোকে নিজস্ব চ্যানেলে কৃষকদের ঋণ দেয়ার তাগিদ দিয়ে আসছে। যদিও এখনো দেশের সিংহভাগ ব্যাংকের কৃষি ঋণই পুরোপুরি এনজিও নির্ভর।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন