শনিবার | মে ০৮, ২০২১ | ২৫ বৈশাখ ১৪২৮

আন্তর্জাতিক খবর

করোনার সব রূপই ধরা পড়ে পিসিআর টেস্টে

বণিকবার্তা অনলাইন

করোনা ভাইরাসের যতগুলো রূপ বদলায় তার সবই ধরা পড়ে পিসিআর টেস্টে। বর্তমানে ভারতে যুক্তরাজ্যের ১৭ ও ব্রাজিল থেকে আসা ১৭ টি মিউটেশনের করোনা ভাইরাস শনাক্ত করা হয়েছে। এছাড়া দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে আসা ১২ মিউটেশনের পাশাপাশি উচ্চ সংক্রামক ডাবল মিউট্যান্ট ভাইরাসও শনাক্ত হয়েছে। শুক্রবার ভারতের কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রী হর্ষ বর্ধন এ কথা জানিয়েছেন। খবর স্ক্রল.ইন। 

দেশটির কেন্দ্রীয় সরকার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে ট্রান্সক্রিপশন পলিমেরেস চেইন রিয়্যাকশন তথা আরটি-পিসিআর টেস্টে ভাইরাসের যতগুলো পরিবর্তিত রূপ আছে তার সবই ধরা পড়ে। 

কয়েকদিন ধরে ভারতের মিডিয়াগুলো দাবি করে আসছিল, করোনার নতুন রূপ পরীক্ষা ও শনাক্ত করতে ব্যর্থ হচ্ছে সরকার। সেই দাবির ভিত্তিতে কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এই বিবৃতি দিয়েছে। 

মন্ত্রীর বিবৃতিতে আরো বলা হয়, করোনা মোকাবেলায় নতুন কোনো পদক্ষেপের প্রয়োজন নেই। বরং পূর্ব নির্ধারিত পরিকল্পনা ও কৌশকল যথা, টেস্ট, ট্র্যাক, ট্রেস ও ট্রিটমেন্টই যথেষ্ট। 

স্বাস্থ্যমন্ত্রী আরো বলেন, যুক্তরাজ্য, ব্রাজিল ও দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে করোনা ভাইরাসের যে ৪৬ প্রজাতি পাওয়া গেছে তা খুব বেশি সংক্রামক। এছাড়া বিভিন্ন দেশ থেকে আরো কয়েক প্রজাতির উচ্চ সংক্রামক ঝুঁকি সম্পন্ন মিউটেশনের উপস্থিতি শনাক্ত করা হয়েছে। এছাড়া অস্ট্রেলিয়া, বেলজিয়াম, জার্মানি, আয়ারল্যান্ড, নামিবিয়া, নিউজিল্যান্ড, সিঙ্গাপুর, যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্রে যে বেশি সংক্রমণ ক্ষমতা সম্পন্ন ডাবল মিউট্যান্ট ভাইরাস শনাক্ত হয়েছে ভারতে তা শনাক্ত হলেও খুব বেশি ছড়ায়নি এখনো। 

এ বছরের জানুয়ারি থেকে মার্চ পর্যন্ত মহারাষ্ট্র থেকে সংগ্রহ করা নমুনায় ভাইরাসের ডাবল মিউট্যান্ট রূপটি শনাক্ত করে পুনে ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অব ভাইরোলজি। 

ভরতের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা বলেছেন, ‘করোনা ভাইরাসের নতুন পাওয়া এই ডাবল মিউট্যান্ট রূপটি মারাত্মক ক্ষতিকর হতে পারে। যা সংক্রমণের দিক দিয়ে খুবই শক্তিশালী।’ 

শুক্রবার যুক্তরাজ্য জানিয়েছে, ভারতে এখন পর্যন্ত ডাবল মিউট্যান্ট ভাইরাসে ৭৭ টি আক্রান্তের ঘটনা শনাক্ত করা হয়েছে। 

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন