মঙ্গলবার | এপ্রিল ২০, ২০২১ | ৬ বৈশাখ ১৪২৮

শেয়ারবাজার

আজ ও আগামীকাল বিএটিবিসির লেনদেন স্পট মার্কেটে

নিজস্ব প্রতিবেদক

আজ আগামীকাল ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো বাংলাদেশ কোম্পানি (বিএটিবিসি) লিমিটেডের শেয়ার কেবল স্পট মার্কেটে লেনদেন হবে। দুদিন ব্লক মার্কেটে কোম্পানিটির লেনদেনও স্পট সেটলমেন্ট সাইকেলের মাধ্যমে নিষ্পত্তি করা হবে। মার্চ বার্ষিক সাধারণ সভা (এজিএম) সংক্রান্ত রেকর্ড ডেট থাকায় সেদিন কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন বন্ধ থাকবে।

৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত ২০২০ হিসাব বছরের জন্য শেয়ারহোল্ডারদের ৫০০ শতাংশ চূড়ান্ত লভ্যাংশ প্রদানের সুপারিশ করেছে বিএটিবিসির পরিচালনা পর্ষদ। এর মধ্যে ৩০০ শতাংশ নগদ আর ২০০ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ। এর আগে সমাপ্ত হিসাব বছরের প্রথম তিন প্রান্তিকের আর্থিক প্রতিবেদনের ওপর ভিত্তি করে কোম্পানিটি শেয়ারহোল্ডারদের ৩০০ শতাংশ অন্তর্বর্তী নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল। সব মিলিয়ে গত হিসাব বছরের জন্য ৮০০ শতাংশ লভ্যাংশ পাবেন কোম্পানিটির শেয়ারহোল্ডাররা। সমাপ্ত হিসাব বছরের আর্থিক প্রতিবেদন, ঘোষিত লভ্যাংশ অন্যান্য এজেন্ডা পর্যালোচনা অনুমোদনের জন্য আগামী ২৮ মার্চ ডিজিটাল প্লাটফর্মে কোম্পানিটির এজিএম আহ্বান করা হয়েছে।

আলোচ্য হিসাব বছরে বিএটিবিসির শেয়ারপ্রতি আয় (ইপিএস) হয়েছে ৬০ টাকা ৪৮ পয়সা, আগের হিসাব বছরে যা ছিল ৫১ টাকা ৩৭ পয়সা। হিসাবে গত হিসাব বছরে কোম্পানিটির ইপিএস বেড়েছে টাকা ১১ পয়সা বা প্রায় ১৮ শতাংশ। ৩১ ডিসেম্বর কোম্পানিটির শেয়ারপ্রতি নিট সম্পদমূল্য (এনএভিপিএস) দাঁড়িয়েছে ১৮৮ টাকা ৮৯ পয়সা, যা আগের হিসাব বছর শেষে ছিল ১৯৮ টাকা ৮৫ পয়সা।

২০১৯ সালের ৩১ ডিসেম্বর সমাপ্ত হিসাব বছরের জন্য শেয়ারহোল্ডারদের ৪০০ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দিয়েছিল বিএটিবিসি। তার আগের হিসাব বছরে মোট ৭০০ শতাংশ লভ্যাংশ দিয়েছিল তারা। এর মধ্যে ৫০০ শতাংশ নগদ বাকি ২০০ শতাংশ স্টক লভ্যাংশ।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) গতকাল বিএটিবিসির শেয়ারের সর্বশেষ সমাপনী দর ছিল হাজার ৫৪৪ টাকা ৯০ পয়সা। গত এক বছরে শেয়ারটির সর্বনিম্ন সর্বোচ্চ দর ছিল যথাক্রমে ৮২১ টাকা ৬০ পয়সা হাজার ৭৯৯ টাকা ৭০ পয়সা।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন