বৃহস্পতিবার | মার্চ ০৪, ২০২১ | ২০ ফাল্গুন ১৪২৭

টেলিকম ও প্রযুক্তি

ফেসবুকের ব্লক সত্ত্বেও পরিকল্পনা থেকে সরবে না অস্ট্রেলিয়া

বণিক বার্তা ডেস্ক

অস্ট্রেলিয়ার স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলোর খবর প্রচারে অর্থ দিতে হবে গুগল ফেসবুকের মতো প্রতিষ্ঠানগুলোকে। সম্প্রতি এমন এক নীতিমালার প্রস্তাব করেছে অস্ট্রেলিয়া। কিন্তু তার বিরুদ্ধে মৌখিক প্রতিবাদ জানিয়েছে বড় প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলো। এমনকি প্রতিবাদের অংশ হিসেবে গত সপ্তাহেই দেশটিতে সব সংবাদ কনটেন্ট এবং বেশকিছু সরকারি জরুরি বিভাগের অ্যাকাউন্ট ব্লক করেছে ফেসবুক। এদিকে প্রতিবাদের মুখেও অস্ট্রেলিয়া তার নীতিমালা বদলাবে না এমনই দাবি করছে দেশটির এক জ্যেষ্ঠ আইনপ্রণেতা। খবর রয়টার্স।

গতকাল অস্ট্রেলিয়ার সিনেটে নতুন বিল নিয়ে আলোচনা হয়েছে। তবে দেশটির উচ্চকক্ষের জ্যেষ্ঠতম আইনপ্রণেতা দাবি করেছেন, নীতিমালায় আর কোনো পরিবর্তন করা হবে না। দেশটির অর্থমন্ত্রী সিমন বার্মিংহাম মনে করেন, বিল যেভাবে আছে, তা ঠিকঠাক জায়গাতেই রয়েছে।

বার্মিংহাম আরো জানান, বর্তমান কাঠামোয় বিলটি নিশ্চিত করছে যে অস্ট্রেলিয়ার সংবাদ সংস্থার তৈরি অস্ট্রেলীয় সংবাদ কনটেন্টের অর্থ পাওয়া উচিত এবং তা যথাযথ বৈধ উপায়ে করতে হবে।

ব্যক্তিগত দরকষাকষি ব্যর্থ হলে কনটেন্ট লাইসেন্সিং ফি নির্ধারণ করতে একজন বিচারক নিয়োগ দিতে সরকারকে ক্ষমতা দেবে আইন।

ফেসবুক গুগল বলে আসছিল, প্রস্তাবিত ওই আইন ইন্টারনেটের মৌলিক ধারণার সঙ্গেই সাংঘর্ষিক। অস্ট্রেলিয়া সরকার অন্যায্যভাবে তাদের শাস্তির মুখে ফেলছে। সে অবস্থান থেকে গত সপ্তাহে কিছুটা নমনীয় হয়ে রুপার্ট মারডকের নিউজ করপোরেশনকে লাভের ভাগ দিতে সম্মত হয়েছিল গুগল। কিন্তু তার কয়েক ঘণ্টার মধ্যেই দেশটিতে নিউজ কনটেন্ট বন্ধের ঘোষণা দেয় ফেসবুক।

সোমবার বিষয়টি নিয়ে মন্তব্য করতে রাজি হননি ফেসবুকের এক প্রতিনিধি। গত সপ্তাহেই অস্ট্রেলিয়ার নিম্নকক্ষে পাস হয়েছে আইনটি। উচ্চকক্ষের বেশির ভাগ আইনপ্রণেতাই এতে সমর্থন দেয়ায় সিনেটে তা সহজেই পাস হয়ে যাবে বলে আশা করা হচ্ছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন