সোমবার | মার্চ ০৮, ২০২১ | ২৩ ফাল্গুন ১৪২৭

টকিজ

দীপিকাই ভারতের সবচেয়ে দামি নারী সেলিব্রিটি

ফিচার ডেস্ক

ডাফ অ্যান্ড ফেলপসের সম্প্রতি প্রকাশ করা সেলিব্রিটি ব্র্যান্ড ভ্যালুয়েশন স্টাডি ২০২০- ভারতের নারী তারকাদের মধ্যে সবার ওপরের নামটি দীপিকা পাড়ুকোন। বিভিন্ন ব্র্যান্ড, ভক্ত দর্শকদের পছন্দে তিনি ভারতের সবচেয়ে প্রিয় অভিনেত্রী। এসবের সঙ্গে তিনি এখন ভারতের সবচেয়ে দামি নারী সেলিব্রিটি।

এক্ষেত্রে দীপিকা ভারতের অনেক বড় পুরুষ সুপারস্টারকেও পেছনে ফেলেছেন। তার ব্র্যান্ড ভ্যালু এখন কোটি ৪০ লাখ মার্কিন ডলার। ডাফ অ্যান্ড ফেলপসের ভারতের সবচেয়ে দামি সেলিব্রিটি ব্র্যান্ড নির্ণয় করতে সমীক্ষা চালায়। আর এবারের থিম ছিল এম্ব্রেসিং নিউ নর্মাল এতে মহামারী সেলিব্রিটিদের ব্র্যান্ড ভ্যালুতে কী প্রভাব রেখেছে সে বিষয়ে গুরুত্ব দেয়া হয়। দীপিকা ব্র্যান্ড ভ্যালুতে পেছনে ফেলেছেন আলিয়া ভাট, আনুশকা শর্মা কারিনা কাপুরকে। তবে উল্লেখ করা যেতে পারে, মহামারী তারকাদের ব্র্যান্ড ভ্যালুর মূল্যমান কমিয়ে দিয়েছে। আগের বছর দীপিকার ব্র্যান্ড ভ্যালু ছিল প্রায় ১০ কোটি মার্কিন ডলার। তাই নারী সেলিব্রিটিদের মধ্যে শীর্ষ অবস্থানে থাকলেও কমেছে তার ব্র্যান্ড মূল্যমান। পুরো তালিকায় শীর্ষ অবস্থানটি বিরাট কোহলির। এরপর রয়েছেন অক্ষয় কুমার রণবীর সিং।

শিগগিরই তার ঝুলিতে যুক্ত হবে আরো নতুন কিছু ব্র্যান্ড। ২০০৭ সালে ওম শান্তি ওম ছবির মাধ্যমে রুপালি পর্দায় অভিষেক হয়েছিল দীপিকার। এর পর থেকে তিনি ক্রমেই বলিউডে তার অবস্থানকে শক্ত করেছেন।

অনেক বছর ধরেই দীপিকা বেশ কয়েকটি বৈশ্বিক ব্র্যান্ডের অ্যাম্বাসেডর। তার ইনস্টাগ্রামে ফলোয়ারের সংখ্যা কোটি ২০ লাখ এবং টুইটারে প্রায় তিন কোটি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে তিনি ভারতের অন্যতম জনপ্রিয় তারকা।

২০১৯ সালে টেলিকম রেগুলেটরি অথরিটি অব ইন্ডিয়ার মতে দীপিকা ভারতের সবচেয়ে আস্থাভাজন নারী সেলিব্রিটি।

দীপিকাকে সামনে দেখা যাবে শকুন বাত্রার ছবিতে। এটি হবে দি ইন্টার্ন ছবির হিন্দি রিমেক। এছাড়া পাঠান ছবিতে তাকে দেখা যাবে শাহরুখ খানের বিপরীতে। এরপর সর্বভারতীয় ছবিতে পর্দা ভাগ করবেন দক্ষিণের তারকা প্রভাসের সঙ্গে। এছাড়া মহাভারতের কাহিনী নিয়ে নির্মিতব্য ছবিতে তাকে দ্রৌপদীর চরিত্রে দেখা যাবে বলেও সংবাদ প্রকাশিত হয়েছে।

 

সূত্র: ডিএনএ কুইন্ট

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন