সোমবার | মার্চ ০১, ২০২১ | ১৬ ফাল্গুন ১৪২৭

দেশের খবর

লালমনিরহাট সীমান্তে ফের বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশী নিহত

বণিক বার্তা প্রতিনিধি, লালমনিরহাট

লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার ঝালাঙ্গী সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে আবুল কালাম (৩০) নামে এক বাংলাদেশী নিহত হয়েছেন।

আবুল কালাম পাটগ্রাম উপজেলার শ্রীরামপুর ইউনিয়নের ঝালঙ্গী (পকেট) এলাকার জয়নালু হকের ছেলে। এ ঘটনায় নিহতের ভগ্নিপতি হুমায়ুন কবীর বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিকে আসামি করে পাটগ্রাম থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।  আজ শুক্রবার বিকালে পাটগ্রাম থানার ওসি সুমন কুমার মোহন্ত এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

উপজেলার শ্রীরামপুর ইউনিয়নের ঝালঙ্গী বিজিবি ও স্থানীয় লোকজন জানায়, আজ ভোর সাড়ে ৪টার দিকে ঝালাঙ্গী সীমান্তের ৮৪৮ নম্বর মেইন পিলারের সাবপিলার ৬-৭ নম্বরের কাছ দিয়ে আবুল কালামসহ ৪/৫ জন বাংলাদেশী গরু আনতে ভারতীয় গরু ব্যবসায়ীদের সহযোগিতায় সীমান্তে যান।  ভারতীয় কোচবিহার-১৪০ ব্যাটালিয়নের ডোরাডাবরী বিএসএফ ক্যাম্পের একটি টহল দল তাদের লক্ষ্য করে গুলি ছুড়লে আবুল কালাম গুলিবিদ্ধ হয়ে পালিয়ে আসেন। পরে তার অপর সঙ্গীরা তাকে রংপুর মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে নেয়ার পথেই তিনি মারা যান। পাটগ্রাম থানা পুলিশ আবুল কালামের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য লালমনিরহাট সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

রংপুর-৬১ বিজিবি ব্যাটালিয়নের পরিচালক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোজাম্মেল হক ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, আবুল কালাম নিহতের ঘটনায় বিএসএফকে কড়া প্রতিবাদপত্র পাঠানো হয়েছে।  পরবর্তীতে এ বিষয়ে পতাকা বৈঠক করা হবে।

উল্লেখ্য, গত ১৬ ডিসেম্বর পাটগ্রাম উপজেলার শ্রীরামপুর ইউনিয়নের ইসলামপুর এলাকার দুলাল হোসেনের ছেলে জাহিদুল ইসলাম(২২) গরু আনতে গিয়ে বিএসএফের গুলিতে নিহত হন। গত ১ মাস ৫ দিনের ব্যবধানে ওই ইউনিয়নে আবুল কালামসহ ৩ বাংলাদেশী বিএসএফের গুলিতে নিহত হলেন।  গত ১০ ডিসেম্বর আবু তালেব (৩২) নামে অপর এক গরু পারাপারকারী বিএসএফের গুলিতে নিহত হন। 

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন