শনিবার | নভেম্বর ২৮, ২০২০ | ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

পণ্যবাজার

উগান্ডার কফি রফতানিতে ২১ শতাংশ প্রবৃদ্ধি

বণিক বার্তা ডেস্ক

পূর্ব আফ্রিকার দেশ উগান্ডার রফতানি পণ্যগুলোর মধ্যে অন্যতম কফি। প্রতি বছর উগান্ডা থেকে উত্তর আমেরিকা ইউরোপের দেশগুলোয় উল্লেখযোগ্য পরিমাণ কফি রফতানি হয়। ধারাবাহিকতায় চলতি বছরের প্রথম ১০ মাসে (জানুয়ারি-অক্টোবর) দেশটি থেকে পানীয় পণ্যটির রফতানি আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় এক-পঞ্চমাংশের বেশি বেড়েছে। একই সময়ে কফি রফতানি করে দেশটির আয়ও বেড়েছে ১৮ শতাংশ। উগান্ডা কফি ডেভেলপমেন্ট অথরিটির (ইউসিডিএ) সর্বশেষ মাসভিত্তিক প্রতিবেদনে তথ্য জানানো হয়েছে। খবর সিনহুয়া এগ্রিমানি।

ইউসিডিএর প্রতিবেদনের তথ্য অনুযায়ী, চলতি বছরের জানুয়ারি-অক্টোবর সময়ে উগান্ডা থেকে আন্তর্জাতিক বাজারে সব মিলিয়ে ৫৪ লাখ ব্যাগ (প্রতি ব্যাগে ৬০ কেজি) কফি রফতানি হয়েছে। আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় চলতি বছরের প্রথম ১০ মাসে দেশটি থেকে পানীয় পণ্যটির রফতানি এক-পঞ্চমাংশের বেশি বা ২১ শতাংশ বেড়েছে। ২০১৯ সালের জানুয়ারি-অক্টোবর সময়ে দেশটি থেকে মোট ৪৫ লাখ ব্যাগ কফি রফতানি হয়েছিল। সেই হিসাবে এক বছরে উগান্ডা থেকে পানীয় পণ্যটির রফতানি বেড়েছে নয় লাখ ব্যাগ।

চলতি বছরের প্রথম ১০ মাসে কফি রফতানি করে উগান্ডার রফতানিকারকরা সব মিলিয়ে ৫১ কোটি ৩৯ লাখ ৯০ হাজার ডলার আয় করেছেন বলে প্রতিবেদনে জানিয়েছে ইউসিডিএ, যা আগের বছরের একই সময়ের তুলনায় ১৮ শতাংশ বেশি। গত বছরের জানুয়ারি-অক্টোবর সময়ে কফি রফতানি বাবদ দেশটির রফতানিকারকদের মোট ৪৩ কোটি ৫৮ লাখ ১০ হাজার ডলার আয় হয়েছিল। অর্থাৎ এক বছরের ব্যবধানে উগান্ডার কফি রফতানিকারকদের আয় বেড়েছে কোটি ৮১ লাখ ডলারের বেশি।

এদিকে মাসভিত্তিক হিসাবে সর্বশেষ অক্টোবরে উগান্ডা থেকে আন্তর্জাতিক বাজারে কফি রফতানির পরিমাণ দাঁড়িয়েছে লাখ ২৮ হাজার ১৫ ব্যাগে, যা আগের মাসের তুলনায় ১৩ শতাংশ বেশি।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন