বুধবার | নভেম্বর ২৫, ২০২০ | ১১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

টকিজ

নারীদের বাধা ডিঙানোর গল্প নিয়ে ক্যাটরিনার ‘কে কনভারসেশন’

ফিচার ডেস্ক

বলিউড অভিনেত্রী ক্যাটরিনা কাইফের এক্সক্লুসিভ বিউটি ব্র্যান্ড কে বিউটি যাত্রার এক বছর পূর্ণ হয়েছে। এবার অভিনেত্রী কে কনভারসেশন নামে নতুন একটি সিরিজ শুরু করেছেন। সিরিজে নারীদের অনুপ্রেরণাদায়ী সাহসের গল্প তুলে ধরা হবে। নিজেদের কাজ আর সাহস দিয়ে যেসব নারী সমাজের আইকন হয়ে উঠছেন, তাদের কথা উঠে আসবে কে কনভারসেশন-এ।

সিরিজের প্রথম পর্বে দেখা যাবে ক্রীড়াবিদ, কোচ লেখক আয়েশা বিলিমোরিয়াকে। এক দুর্ঘটনায় তার পা প্রায় অকার্যকর হয়ে যায়। তিনি প্যারালাইজড হয়ে পড়েছিলেন। অনুষ্ঠানে বিলিমোরিয়া সে সময়গুলোতে তার ইতিবাচক শক্ত থাকার কথা বলেছেন। কথা বলেছেন যখন তিনি আবার হাঁটাচলা শুরু করেন, জীবনকে এগিয়ে নিতে শুরু করেছিলেনসেসব গল্প নিয়ে।

সিরিজটি সম্পর্কে কথা বলতে গিয়ে ক্যাটরিনা বলেন, আমার জীবনের লড়াইয়ের প্রতিটি মুহূর্তে প্রেরণাদায়ী নারীদের গল্প আমাকে সামনে এগিয়ে যেতে অনুপ্রাণিত করেছিল। কে বিউটিতে আমরা কী কাজ করতে চলেছি তা সবার সঙ্গে ভাগ করে নিতে আমি খুবই উৎসাহী।

ক্যাটরিনা আরো যোগ করেন, আমরা কে কনভারসেশনে এমন সব নারীকে তুলে ধরছি, যারা তাদের স্বপ্ন পূরণে অনেক বাধা অতিক্রম এবং ভয়কে জয় করেছেন। নারী হিসেবে আমাদের নির্দিষ্ট কোনো ছাঁচে ফেলা ঠিক নয়। আমরা প্রত্যেকে আমাদের নিজ নিজ জায়গায় বিশেষ অনন্য।

সৌন্দর্য বিষয়ে ক্যাটরিনার ভাষ্য, সৌন্দর্য তাই যা আপনার স্বতন্ত্রতা এবং আপনি যেমন সেভাবেই আপনাকে তুলে ধরে। আমাদের প্রথম কে কনভারসেশনের অতিথি আয়েশা বিলিমোরিয়া। তিনি এমন একজন ক্রীড়াবিদ, যার অলিম্পিক যাত্রা দুর্ঘটনার কারণে বাধাপ্রাপ্ত হয়েছিল। কিন্তু দুর্ঘটনা তাকে থামাতে পারেনি। হাজারো মানুষের অনুপ্রেরণা হওয়া থেকেও তাকে বিরত রাখতে পারেনি।

ক্যাটরিনার কাছে সৌন্দর্য হলো নিজেকে আলিঙ্গন করা এবং সত্যিকার অর্থে আমরা যা ঠিক, সেভাবেই নিজেকে উদযাপন করা। অভিনেত্রী দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করেন যে মেকআপ হওয়া উচিত আনন্দের বিষয়, ভয়ানক কিছু নয়।

 

সূত্র: ডিএনএ

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন