বুধবার | অক্টোবর ২১, ২০২০ | ৬ কার্তিক ১৪২৭

প্রথম পাতা

দেশে শনাক্তের হারে আবারো ঊর্ধ্বগতি

নিজস্ব প্রতিবেদক

কভিড-১৯ শনাক্তের হার আবারো ঊর্ধ্বমুখী। ২২ সেপ্টেম্বর নমুনা পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ১০ দশমিক ৯৯ শতাংশ ছিল। পরদিন এটি বেড়ে দাঁড়ায় ১১ দশমিক ৭৭ শতাংশ। আর গতকাল শনাক্তের হার ছিল ১১ দশমিক ৯৪ শতাংশ। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য বিশ্লেষণ করে তথ্য জানা গেছে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য বলছে, গত ২৪ ঘণ্টায় আরো ২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। নিয়ে কভিড-১৯ সংক্রমণে মোট মৃতের সংখ্যা হাজার ৭২- দাঁড়াল। সময়ের মধ্যে নতুন করে ভাইরাসে আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়েছে হাজার ৫৪০ জন। নিয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল লাখ ৫৫ হাজার ৩৮৪। গতকাল স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে তথ্য জানানো হয়েছে। স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তথ্য বলছে, বাসা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আরো হাজার ১৩৯ জন কভিড-১৯ সংক্রমণ থেকে মুক্তি লাভ করেছে গত একদিনে। এতে সুস্থ রোগীর মোট সংখ্যা বেড়ে লাখ ৬৫ হাজার ৯২ হয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে ১০৩টি ল্যাবে ১২ হাজার ৯০০টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। পর্যন্ত পরীক্ষা হয়েছে ১৮ লাখ ৭৫ হাজার ৫৩৭টি নমুনা। ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ১১ দশমিক ৯৪ শতাংশ। পর্যন্ত মোট শনাক্তের হার ১৮ দশমিক ৯৫ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৭৪ দশমিক ৫৯ শতাংশ এবং মৃত্যুহার দশমিক ৪৩ শতাংশ। মৃতদের মধ্যে পুরুষ ২১ জন নারী সাতজন। তাদের সবাই হাসপাতালে মারা গেছে।

দেশে পর্যন্ত মারা যাওয়া হাজার ৭২ জনের মধ্যে হাজার ৯৩৫ জনই পুরুষ এবং হাজার ১৩৭ জন নারী। তাদের মধ্যে হাজার ৫৬৩ জনের বয়স ছিল ৬০ বছরের বেশি। এছাড়া হাজার ৩৭৭ জনের বয়স ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে, ৬৫৪ জনের বয়স ৪১ থেকে ৫০, ২৯৪ জনের বয়স ৩১ থেকে ৪০, ১১৮ জনের বয়স ২১ থেকে ৩০, ৪২ জনের বয়স ১১ থেকে ২০ ২৪ জনের বয়স ছিল ১০ বছরের কম। এর মধ্যে হাজার ৫০৭ জন ঢাকা বিভাগের, হাজার ৫০ জন চট্টগ্রাম, ৩৩৫ জন রাজশাহী, ৪২৭ জন খুলনা, ১৮৬ জন বরিশাল, ২২৪ জন সিলেট, ২৩৬ জন রংপুর ১০৭ জন ময়মনসিংহ বিভাগের বাসিন্দা।

জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকায় বিশ্বে শনাক্তের দিক থেকে ১৫তম স্থানে রয়েছে বাংলাদেশ আর মৃতের সংখ্যায় রয়েছে ২৯তম অবস্থানে। এছাড়া বিশ্বে কভিড-১৯ সংক্রমণে মৃত্যুর দিক থেকে শীর্ষে অবস্থান করছে যুক্তরাষ্ট। দেশটিতে মোট মৃত্যুর সংখ্যা লাখ হাজার ৫৯৩। রোগী শনাক্তের দিক দিয়ে দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। মৃত্যুর সংখ্যার দিক দিয়ে দেশটির অবস্থান তৃতীয় স্থানে। দেশটিতে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৫৭ লাখ ৩২ হাজার ৫১৮ আর মারা গেছে ৯১ হাজার ১৭৩ জন। আক্রান্তের দিক থেকে বিশ্বে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছে ব্রজিল। দেশটিতে এখন পর্যন্ত মারা গেছে লাখ ৩৯ হাজার ৬৫ জন এবং শনাক্ত হয়েছে ৪৬ লাখ ২৭ হাজার ৭৮০ জন।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন