বৃহস্পতিবার | অক্টোবর ০১, ২০২০ | ১৬ আশ্বিন ১৪২৭

খবর

কোতোয়ালির ওসিসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহার

আদালত প্রতিবেদক

ক্রসফায়ারের ভয় দেখিয়ে লাখ টাকা আদায়ের অভিযোগে রাজধানীর কোতোয়ালি থানার অফিসার ইনচার্জসহ (ওসি) ছয়জনের বিরুদ্ধে করা মামলা প্রত্যাহার করে নিলেন বাদী কাপড় ব্যবসায়ী মো. সোহেল মীর।

গতকাল মামলাটিতে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের দিন ধার্য ছিল। কিন্তু পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই) মামলায় এদিন কোনো প্রতিবেদন দাখিল করেনি। মামলাটি শুনানির জন্য উঠলে বাদী মামলাটি প্রত্যাহার করতে চান মর্মে আবেদন করেন।

ঢাকা মহানগর হাকিম আবু সুফিয়ান মো. নোমান বাদীর পরিপ্রেক্ষিতে মামলা প্রত্যাহারের আদেশ দেন। তবে প্রত্যাহারের কারণ সম্পর্কে সোহেল মীরের সঙ্গে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি পরিচয় জানার পর পরে কথা বলবেন বলে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন। পরে ফোন দিলেও আর ধরেননি।

গত ১০ আগস্ট বাদী মামলা করেন। ওইদিন আদালত পিবিআইকে তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেন।

মামলার আসামি ছিলেন কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান, উপপরিদর্শক (এসআই) পবিত্র সরকার, খালেদ শেখ মো. শাহিনুর, কনস্টেবল মিজান এবং পুলিশের সোর্স মোতালেব।

মামলায় বলা হয়, গত আগস্ট বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে বুড়িগঙ্গা নদী পার হয়ে কোতোয়ালি থানার ওয়াইজঘাট এলাকা দিয়ে মেয়ের বাসার দিকে যাচ্ছিলেন মো. সোহেল। পথে পুলিশ তাকে ঘেরাও করে। তল্লাশি করে তার পকেটে থাকা হাজার ৯০০ টাকা নিয়ে নেয় পুলিশ। তল্লাশি শেষে পুলিশ সোহেলকে চলে যেতে বললে তিনি সেই টাকা ফেরত চান।

তখন তাকে মারধর করা হয়। ধীরে ধীরে সেখানে লোক সমাগম বাড়তে থাকে। লোকজন এসে জানতে চান, কী হয়েছে? তখন আসামিরা বলেন, তার পকেটে দুই প্যাকেট ইয়াবা পাওয়া গেছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন