শনিবার | সেপ্টেম্বর ১৯, ২০২০ | ৪ আশ্বিন ১৪২৭

পণ্যবাজার

সাড়ে ৬ বছরের সর্বোচ্চে আকরিক লোহার দাম

বণিক বার্তা ডেস্ক

নভেল করোনাভাইরাসের মহামারীর ধাক্কা সামলে গতি ফিরতে শুরু করেছে চীনের অর্থনীতিতে। কারখানাগুলোয় আগের তুলনায় বেড়েছে ইস্পাতসহ বিভিন্ন ধরনের পণ্যের উৎপাদন। এর জের ধরে দেশটিতে ইস্পাত তৈরির কাঁচামাল আকরিক লোহার দাম বাড়তে শুরু করেছে। এরই মধ্যে সাড়ে ছয় বছরের মধ্যে সর্বোচ্চে উঠেছে শিল্প ধাতুটির দাম। খবর মেটাল বুলেটিন মাইনিংডটকম।

চীনের শিল্পপ্রধান উত্তরাঞ্চলের বাজারে সোমবার ভবিষ্যতে সরবরাহ চুক্তিতে প্রতি টন আকরিক লোহার দাম ১৩০ ডলার ১৭ সেন্টে উঠেছে, যা আগের কার্যদিবসের তুলনায় দশমিক শতাংশ বেশি। ২০১৪ সালের জানুয়ারির পর এটাই চীনের বাজারে শিল্প ধাতুটির সর্বোচ্চ দাম। এমনকি চলতি বছরের শুরু থেকে এখন অবধি চীনে আকরিক লোহার দাম ৪১ শতাংশের বেশি বেড়েছে।

করোনা মহামারীর শুরুর দিকে সিটি গ্রুপের এক প্রাক্কলনে বলা হয়েছিল, লকডাউনের কারণে চলতি বছর চীনে ইস্পাত উৎপাদন আগের বছরের তুলনায় শতাংশ কমে আসতে পারে। তবে বছরের মাঝামাঝি সময়ে এসে করোনা পরিস্থিতির লাগাম টানতে সক্ষম হয়েছে চীন। লকডাউন উঠে গিয়ে গতি ফিরেছে অর্থনীতিতে। এখন প্রতিষ্ঠানটি বলছে, চীনে ইস্পাত উৎপাদনে মন্দার সম্ভাবনা আর নেই। বরং প্রবৃদ্ধির হার হতে পারে - শতাংশ। ইস্পাত উৎপাদন বাড়লে দেশটিতে স্বাভাবিকভাবেই বাড়তির দিকে থাকবে আকরিক লোহার দাম।

সিটি গ্রুপের পূর্বাভাস অনুযায়ী, চলতি বছরের বাকি সময়ে চীনের বাজারে আকরিক লোহার দাম বর্তমানের তুলনায় কিছুটা কমে আসতে পারে। শিল্প ধাতুটির দাম টনপ্রতি ১০০-১২০ ডলারের মধ্যে অবস্থান করতে পারে। যদিও করোনা মহামারীর শুরুর দিকে প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে প্রতিষ্ঠানটি চলতি বছর প্রতি টন আকরিক লোহার সম্ভাব্য গড় দাম ৯০ ডলার প্রাক্কলন করেছিল। ইস্পাত উৎপাদন খাতে গতি ফেরায় চীনে আকরিক লোহার দাম আগের তুলনায় বাড়তির পথে রয়েছে। আর ২০২১ সালে চীনের বাজারে প্রতি টন আকরিক লোহার গড় দাম দাঁড়াতে পারে ১১০ ডলারে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন