বুধবার | সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২০ | ৮ আশ্বিন ১৪২৭

দেশের খবর

লক্ষীপুরে যৌতুকের জন্য সংগীত শিল্পীকে হত্যার অভিযোগ, বরিশালে মানববন্ধন

বণিক বার্তা প্রতিনিধি, বরিশাল

লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জ উপজেলার সাউদেরখিল এলাকায় দাবিকৃত যৌতুকের টাকা না পেয়ে শ্বশুরবাড়ির লোকজন এক গৃহবধূকে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ‘হত্যাকারীদের’ বিচারের দাবিতে বরিশালে মানববন্ধন করেছে মারা যাওয়া গৃহবধূর পিতার বাড়ির আত্মীয়-স্বজন।

নিহত তানজিলার বাবার বাড়ি বরিশাল নগরীর ভাটিখানার পান্থ সড়কে। ৯ মাসের অন্তঃস্বত্ত্বা তানজিলা রহমান খান লোক সংগীত শিল্পী ছিলেন বলে মানববন্ধনে বলা হয়েছে। আজ বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় নগরীর সদর রোডের অশ্বিনী কুমার হলের সামনে এই মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন তানজিলা রহমানের বাবা সাইদুর রহমান খান।

মানববন্ধনে সাইদুর রহমান খান বলেন, ২০১৬ সালে লক্ষীপুর জেলার রামগঞ্জ উপজেলার সাউদেরখিল মোল্লা বাড়ির মো. মোহসিন মোল্লার বড় পুত্র জহিরুল ইসলাম জনির সাথে তার মেয়ের বিয়ে হয়। বিয়ের পর মেয়ের শ্বশুর বাড়ির লোকেরা ৫ লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে। তারা যৌতুকের দাবিতে তার শ্বশুর বাড়ির লোকেরা আমার মেয়েকে নানানভাবে নির্যাতন করেন। তাদের দাবির পরিপ্রেক্ষিতে ২০১৯ সালের ডিসেম্বর মাসে মেয়ের শান্তির কথা ভেবে ২ লাখ টাকা পাঠিয়েছিও। বাকি ৩ লাখ টাকার জন্য আমার মেয়ের উপর শ্বশুর বাড়ির লোকজন অত্যাচার ও শারীরিক নির্যাতন চালায়।

তিনি বলেন, এক পর্যায়ে গত ৭ আগস্ট দিবাগত মধ্যরাতে তার মেয়ে ফোন করে জানায় যে, যৌতুকের টাকার জন্য শ্বশুর বাড়ির লোকজন তাকে শারীরিকভাবে অত্যাচার করছে। টাকা পাঠানোর জন্য অনুরোধ করে কান্নাকাটিও করে। পরবর্তীতে গত ৮ আগস্ট তাকে নির্যাতন করলে মৃত্যুবরণ করে। পরবর্তীতে পুলিশ প্রশাসনের মাধ্যমে তানজিলার মৃতদেহসহ জামাতা জহিরুল ইসলাম জনিকে থানায় নিয়ে আসা হয় এবং ৮ আগস্ট রাতে ছেলে মো. সাইফুর রহমান বাদী হয়ে রামগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করে।

মানববন্ধনে বক্তারা তানজিলার হত্যার সাথে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করেন।

মানববন্ধনে একাত্বতা প্রকাশ করে অন্যান্যের মধ্যে বক্তৃতা করেন বরিশাল বাসদের সদস্য সচিব ডা. মনীষা চক্রবর্তী, মাসুমা বেগম, জাকিয়া, সুলতানা নিপা, সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফোরাম, বাংলাদেশ মহিলা পরিষদের নেতৃবৃন্দরা।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন