শনিবার | আগস্ট ১৫, ২০২০ | ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭

খেলা

আপিলে জিতল সিটি, উঠে গেল নিষেধাজ্ঞা

বণিক বার্তা ডেস্ক

ইংলিশ ক্লাব ম্যানচেস্টার সিটিকে ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবলে দুই বছরের জন্য নিষিদ্ধ করেছিল উয়েফা। সেই নিষেধাজ্ঞাকে চ্যালেঞ্জ করে আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালতে যায় ক্লাবটি। আজ সুইজারল্যান্ডভিত্তিক ক্রীড়া আদালত সিটির ওপর থেকে সেই নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার রায় দিয়েছে। ফলে আবুধাবি গ্রুপের মালিকানাধীন ক্লাবটি আগামী মৌসুমে ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতায় খেলতে পারবে। 

অভিযোগ রয়েছে, মালিক শেখ মনসুর আল নাহিয়ানের কোম্পানির প্রদত্ত অর্থ নিজেদের আয় হিসেবে দেখানোয় ম্যানসিটিকে দোষী সাব্যস্ত করে উয়েফা। ২০১২ ও ২০১৬ সালে ‘গুরুতর আর্থিক অনিয়ম’ করায় সিটিকে দুই বছরের জন্য ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতায় নিষিদ্ধ করা হয়। যদিও এ অভিযোগ থেকে সিটিকে মুক্তি দিল আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালত। সেসঙ্গে সিটির জরিমানা ৩ কোটি ইউরো থেকে কমিয়ে ১ কোটি ইউরো করে দিয়েছে ক্রীড়া আদালত। 

এক রুলিংয়ে সোমবার আন্তর্জাতিক ক্রীড়া আদালত জানায়, উয়েফা কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সহযোগিতা করতে পারেনি সিটি। যদিও তারা উয়েফার ক্লাব ফাইন্যান্সিয়াল বডি কর্তৃক প্রদত্ত সিদ্ধান্তকে বাতিল করে দেন। আদালতের বিবৃতি বলছে, ‘উয়েফার বিচারিক চেম্বারের তোলা অভিযোগ প্রতিষ্ঠিত নয় কিংবা মেয়াদোত্তীর্ণ। যেহেতু বিচারিক চেম্বারের কাজে বাধাপ্রদানের চেয়েও বেশি গুরুত্বপূর্ণ হলো ইকুইটি তহবিলের অর্থের কথাটি লুকানো, তাই তদন্তে সহযোগিতা না করার ব্যর্থতা হিসেবে উয়েফা ক্লাব প্রতিযোগিতায় নিষেধাজ্ঞা প্রদানের রায় যথোচিত নয়।’    

সিটি বলেছে, এই সিদ্ধান্ত তাদের অবস্থানকে বৈধতা দিল। তাদের কথায়, ‘প্যানেল সদস্যদের অধ্যবসায়ের জন্য ও তারা যে প্রক্রিয়ায় বিষয়টির তদারক করলেন সেজন্য আমরা আন্তরিকভাবে ধন্যবাদ জ্ঞাপন করতে চাই।’

এই রায়ের ফলে আগামী মৌসুমে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে খেলবে ম্যানসিটি, যারা চলতি প্রিমিয়ার লিগে দ্বিতীয় স্থান সুনিশ্চিত করেছে। চলতি চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শেষ ষোলোয় সিটিজেনরা প্রথম লেগে ২-১ গোলে হারিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদকে। ৭ আগস্ট ইতিহাদে দ্বিতীয় লেগের খেলা। জিতলে শেষ আটে সামনে পাবে জুভেন্টাস কিংবা লিওঁকে। ওই বড় ম্যাচের আগে সুসংবাদই পেলেন সিটির খেলোয়াড় ও কর্মকর্তারা।  

সূত্র: বিবিসি

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন

×