রবিবার | জুলাই ১২, ২০২০ | ২৮ আষাঢ় ১৪২৭

শেয়ারবাজার

বিএসইসির অনলাইন প্লাটফর্মে যুক্ত হল ক্রেডিট রেটিং কোম্পানি ও সিকিউরিটিজ কাস্টডিয়ানরা

নিজস্ব প্রতিবেদক

ক্রেডিট রেটিং কোম্পানি ও সিকিউরিটি কাস্টডিয়ানদের অনলাইন প্লাটফর্মে যুক্ত করেছে পুঁজিবাজার নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। এ প্লাটফর্মের মাধ্যমে ক্রেডিট রেটিং কোম্পানি ও সিকিউরিটিজ কাস্টডিয়ানরা এ বছরের জুলাই থেকেস তাদের মাসিক ও ত্রৈমাসিক প্রতিবেদন অনলাইনে জমা দিতে পারবে। বিএইসির চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াতুল ইসলাম গতকাল এ প্লাটফর্মে ক্রেডিট রেটিং কোম্পানি ও কাস্টডিয়ানদের যুক্ত করার কার্যক্রম উদ্বোধন করেন। 

বিএসইসির নির্বাহী পরিচালক ও মুখপাত্র মো. সাইফুর রহমান স্বাক্ষরিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, এ প্লাটফর্মের মাধ্যমে প্রতিবেদন দাখিলের পর একটি সিস্টেম জেনারেটেড প্রাপ্তি স্বীকারপত্র দেয়া হবে। তাছাড়া ব্যবহারকারীরা তাদের ড্যাশবোর্ডে এরইমধ্যে  যেসব প্রতিবেদন জমা দিয়েছে সেগুলোও থাকবে। প্রতি মাসের ১০ তারিখের মধ্যে দাখিল করা প্রতিবেদন সংশোধন করা যাবে। এই প্লাটফর্মটি বিএসইসি অন্য কারো সাহায্য ছাড়া নিজেরাই তৈরি করেছে।এর ব্যবহারকারীরা দিনে কিংবা রাতে যে কোনো সময় প্রতিবেদন জমা দিতে পারবেন। অন্য দিকে বিএসইসি জমা হওয়া প্রতিবদেন একক ও সামস্টিকভাবে বিশ্লেষন করতে পারবে।

এর আগে গেল বছরের জুলাইয়ে চালু করা এ প্লাটফর্মের মাধ্যমে এতদিন  প্রাতিষ্ঠানিক ব্রোকার, মার্চেন্ট ব্যাংক ও অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানিগুলো প্রতিবেদন দাখিল করছে।

অনুষ্ঠানে বিএসইসির চেয়ারম্যান বলেন, সবক্ষেত্রে তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহারের অবকাঠামো স্থাপনের জন্য খুব শীঘ্রই একজন আন্তর্জাতিক পরামর্শক নিয়োগ করা হবে। এ প্লাটফর্মের মাধ্যমে সব অংশীজনদের প্রতিবেদন দাখিল করা আরো সহজ হবে।

অনুষ্ঠানে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিন্যান্স বিভাগের সাবেক অধ্যাপক এমএ বাকী খলিলি পুঁজিবাজারের সব কার্যক্রমে স্বচ্ছতার উপর বিশেষ জোর দেন। কোভিড-১৯ পরিস্থিতিতে তালিকাভুক্ত কোম্পানির ব্যবসায়িক পরিস্থিতির উপর অতিরিক্ত কোন তথ্যের প্রয়োজনের ব্যাপারে ফিন্যান্সিয়াল রিপোর্টিং কাউন্সিলের (এফআরসি) সঙ্গে এক যোগে কাজ করার পরামর্শ দেন তিনি।

বিএসইসির কমিশনার মো: আবদুল হালিম চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলার জন্য পুঁজিবাজারকে প্রস্তুত করার উপর জোর দেন।


এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন