শুক্রবার | জুন ০৫, ২০২০ | ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

খবর

ত্রাণ বিতরণে গণজমায়েতকে বিপজ্জনক বললেন কাদের

১১ এপ্রিল পর্যন্ত যানবাহন চলাচল বন্ধ

নিজস্ব প্রতিবেদক

নভেল করোনাভাইরাসের কারণে সংকটে থাকা নিম্ন আয়ের মানুষকে খাদ্যসামগ্রী পৌঁছে দিতে গিয়ে গণজমায়েত সৃষ্টি হওয়াকে বিপজ্জনক অভিহিত করে সংশ্লিষ্টদের সতর্ক করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক পরিবহনমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, আমাদের লক্ষ্য রাখতে হবে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করতে গিয়ে অধিকতর বিপজ্জনক পথ বেছে না নিই। কোনো অবস্থাতেই জমায়েত করা যাবে না। ব্যাপারে প্রশাসন, সেনাবাহিনী, পুলিশ, র্যাবসহ আইন প্রয়োগকারী সংস্থা যে দায়িত্ব পালন করছে, তাদের সাহায্য করতে হবে।

কাদের বলেন, দেশের জনগণ, যাত্রী, সাধারণ পরিবহন মালিক শ্রমিক সংগঠনসহ সব স্টেকহোল্ডারের অবগতির জন্য জানাচ্ছি, এর আগে ২৬ মার্চ থেকে এপ্রিল পর্যন্ত সরকার সব ধরনের যানবাহন বন্ধ ঘোষণা করেছিল। আপনারা জানেন সরকার ১১ এপ্রিল পর্যন্ত সরকারি ছুটি বর্ধিত করেছে। অবস্থায় জনস্বার্থ বিবেচনায় ১১ এপ্রিল পর্যন্ত দেশব্যাপী সব ধরনের যানবাহন বন্ধ রাখার অনুরোধ করছি। তবে জরুরি সার্ভিস বিশেষ করে পণ্যবাহী ট্রাক, কাভার্ড ভ্যান, ওষুধ, জ্বালানি, পচনশীল পণ্য, ত্রাণবাহী গাড়ি, অ্যাম্বুুলেন্স নিষেধাজ্ঞার বাইরে থাকবে। তবে পণ্যবাহী যানে কোনোভাবেই যাত্রী পরিবহন করা যাবে না।

মন্ত্রী বলেন, সংকটে আমাদের দেশের পরিবহন অনেক গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছে। অতীতে অনেক ত্যাগ স্বীকার করেছেন মালিক-শ্রমিকরা। আজকের সংকট আমাদের সবার। সংকট উত্তরণেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার যে নির্দেশনামা, সেটি মেনে চলে আপনারা ১১ তারিখ পর্যন্ত আপনাদের পরিবহন বন্ধ রাখবেন। পরবর্তী সিদ্ধান্ত পরবর্তী সময়ে জানা যাবে।

মানুষকে আরো সতর্ক থাকার আহ্বান জানিয়ে কাদের বলেন, দেশরত্ন শেখ হাসিনার ৩১টি নির্দেশনা মেনে আমরা সবাই একযোগে সংঘবদ্ধভাবে অদৃশ্য শক্তির মোকাবেলা করে চলেছি। ঘরে আমরা সুরক্ষার সামগ্রী নিয়ে সুরক্ষিত থাকব। বাইরে অদৃশ্য শক্তি করোনার মোকাবেলা করতে হবে ঘরে ঘরে সুরক্ষা সামগ্রী নিয়ে দুর্গ গড়ে তুলে। আমাদের কোনো অবস্থাতেই শঙ্কিত হলে চলবে না, সতর্ক থাকতে হবে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন