শুক্রবার | জুন ০৫, ২০২০ | ২২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

দেশের খবর

কাগজ-কুড়ানির ফোনে ত্রাণ নিয়ে হাজির ইউএনও

বণিক বার্তা প্রতিনিধি, মানিকগঞ্জ

‘স্যার ঘরে খাবার নাই। বাচ্চা-কাচ্চাদের নিয়ে অনেক কষ্টে আছি। সকালবেলা ওদের বিস্কুট খেতে দিয়েছি। যদি পারেন আমাদেরকে সাহায্য করেন’- মানিকগঞ্জ সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. ইকবাল হোসেনের সেলফোন নম্বরে কল করে এ কথা বলেন এক নারী। ওই নারীর পেশা কাগজ কুড়ানো। করোনার প্রাদুর্ভাবে বাজারঘাট সব বন্ধ হয়ে যাওয়ায় দুই সন্তান নিয়ে বিপাকে পড়েছেন তিনি।

ফোন পাওয়ার পর আজ শুক্রবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে চাল-ডাল নিয়ে সশরীরে ওই নারীর ঝুপড়িঘরে গিয়ে হাজির হোন ইউএনও ইকবাল হোসেন। 

এ বিষয়ে ইউএনও জানান, পৌরসভার লঞ্চঘাট এলাকার ওই নারী টোকাইয়ের কাজ করেন। কাগজপত্র কুড়িয়ে বিক্রি করে সংসার চালান। ছোট্ট দুই সন্তান নিয়ে তিনি থাকেন একটি ভাঙা ঘরে। করোনা ভাইরাসের প্রভাবে তিনি এখন কর্মহীন হয়ে পড়েছেন। বন্ধ হয়ে গেছে তার রোজগার। উপায়ন্তর না পেয়ে তিনি ফোন করে সহযোগিতা চেয়েছেন। সকালে কোনো কিছু মুখে দেয়ার আগে ওই নারীর বাড়িতে তিনি ১০ কেজি চাল, ৫ কেজি আলু ও ২ কেজি ডাল পৌঁছে দিয়েছেন।

ইউএনও আরো জানান, জেলা ও উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে কর্মহীন মানুষের মাঝে বিভিন্ন এলাকায় খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হচ্ছে। তারপরও যদি কেউ খাবারের জন্য তাদের ফোন করেন সঙ্গে সঙ্গে তাদের বাড়িতে খাবার পৌঁছে দেয়া হচ্ছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন