রবিবার | মে ৩১, ২০২০ | ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

খবর

ঢাকায় স্বাস্থ্যকর্মীদের বিনামূল্যে পরিবহন সেবা ‘ক্র্যাক প্লাটুন’

নিজস্ব প্রতিবেদক

মুক্তিযুদ্ধের সময়কার দুর্ধর্ষ গেরিলা সংগঠন ‘ক্র্যাক প্লাটুন’-এর নামে একটি পরিবহন সেবা চালু হয়েছে রাজধানীতে। চিকিৎসক, নার্সসহ স্বাস্থ্যকর্মীদের বিনামূল্যে গন্তব্যে পৌঁছে দিচ্ছে ক্র্যাক প্লাটুন পরিবহন সেবা। গতকাল বুধবার সেবাটি পরীক্ষামূলকভাবে চালু হয়েছে।

প্রাথমিকভাবে ১২টি মাইক্রোবাস ও চারটি বাস নিয়ে সেবাটি চালু হয়েছে। প্রয়োজন অনুযায়ী গাড়ির সংখ্যা আরো বাড়ানো হবে বলে জানিয়েছেন এর উদ্যোক্তারা। প্রতিদিন সকাল ৮টা, বেলা ২টা ও রাত ৮টা- এই ৩ শিফটে ঢাকার ১৬টি রুটের অন্তত ৪০টি হাসপাতালের চিকিত্সক, নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের এই সেবাটি দেয়া শুরু হয়েছে। এ ঢাকার ভেতরে যেকোনো জায়গায় সেবাদানকারীরা জরুরি প্রয়োজনে এ সেবাটি পাবেন।

চলমান সাধারণ ছুটির সময়ে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের পরিবহনজনিত সমস্যা দূর করতে সেবাটি অনুমোদন দিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। তত্ত্বাবধানে রয়েছে দ্য আর্থ সোসাইটি ও বন্ডস্টাইন টেকনোলজিস। পৃষ্ঠপোষকতা করছে ডিবিএল ফার্মাসিউটিক্যালস লিমিটেড। সহায়তা করছে গ্লোবাল শেপারস ঢাকা হাব। স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে ক্র্যাক প্লাটুন পরিবহন সেবা ব্যবস্থাপনায় রয়েছে করোনা প্রতিরোধ সংঘ। বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ মেনে যাত্রীদের মাঝে নির্দিষ্ট দূরত্ব বজায় রেখে ও নির্দিষ্ট সময় পরপর জীবাণুমুক্ত করার মাধ্যমে মাইক্রোবাস ও বাসগুলো পরিচালিত হচ্ছে।

ক্র্যাক প্লাটুন পরিবহন সেবাটি উদ্বোধন করেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ ও স্বাধীনতা চিকিত্সক পরিষদের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি ডা. জামাল উদ্দিন চৌধুরী। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন ডিবিএল গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এম এ জব্বার, দ্য আর্থ সোসাইটির সহপ্রতিষ্ঠাতা সাদেকুল আরেফিন, নির্বাহী পরিচালক মোহাম্মদ মামুন মিয়া ও বন্ডস্টাইন টেকনোলজিসের পরিচালক যাফির শাফিক চৌধুরী।

ঢাকায় কর্মরত চিকিত্সক বা সেবাদানকারীরা সেবাটি বিনা মূল্যে ব্যবহার করতে চাইলে রেজিষ্ট্রেশন করতে হবে bit.ly/crackplatoontransport লিংকে। আর চিকিত্সক বা সেবাদানকারীরা নিজেদের জন্য প্রযোজ্য রুটটি খুঁজে নিতে পারবেন bit.ly/crackplatoonroutes লিংকে। যোগাযোগের হটলাইন নম্বর ০৯৬৩৯৫৯৫৯৫৯। এখন পর্যন্ত ২৫০ জনের বেশি চিকিত্সক ও সেবাদানকারী সেবাটি পেতে রেজিষ্ট্রেশন করেছেন।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন