সোমবার| এপ্রিল ০৬, ২০২০| ২২চৈত্র১৪২৬

পণ্যবাজার

চাঙ্গা হয়েছে ব্ল্যাক টির বৈশ্বিক উৎপাদন

বণিক বার্তা ডেস্ক

২০১৯ সালে ব্ল্যাক টির বৈশ্বিক উপাদনে চাঙ্গা ভাব বজায় রয়েছে। এমনকি চীন ও শ্রীলংকার মতো শীর্ষ উপাদনকারী দেশগুলোয় পানীয় পণ্যটির উপাদন হ্রাস পাওয়া সত্ত্বেও। মূলত ভারতে পণ্যটির উপাদন উল্লেখযোগ্য হারে বেড়েছে, যা বৈশ্বিক উপাদন বাড়াতে প্রভাবক হিসেবে কাজ করেছে। খবর বিজনেস লাইন।

গ্লোবাল টি ডাইজেস্টের কম্পাইলার রাজেশ গুপ্তা জানান, বিদায়ী বছরে বিশ্বের বিভিন্ন দেশে সব মিলিয়ে ২২৯ কোটি ৫ লাখ ১ হাজার কেজি ব্ল্যাক টি উপাদন হয়েছে। ২০১৮ সালে পণ্যটির বৈশ্বিক উপাদনের পরিমাণ ছিল ২২৬ কোটি ৬৮ লাখ ২০ কেজি। সে হিসাবে এক বছরের ব্যবধানে পানীয় পণ্যটির বৈশ্বিক উপাদন ২ কোটি ৩৬ লাখ ৯০ হাজার কেজি বেড়েছে। শতাংশীয় হিসাবে যা ১ দশমিক শূন্য ৫ শতাংশ কম।

কেনিয়া ও শ্রীলংকায় ব্ল্যাক টিয়ের উপাদন সবচেয়ে বেশি কমেছে। গত বছর কেনিয়ায় পানীয় পণ্যটির উপাদন আগের বছরের তুলনায় ৩ কোটি ৪১ লাখ ৮০ হাজার কেজি বা ১ দশমিক ৯৩ শতাংশ কমে ৪ কোটি ৮৮ লাখ ১০ হাজার কেজিতে নেমেছে। একই সময়ে শ্রীলংকায় পণ্যটির উপাদন ৪ লাখ ৫০ হাজার কেজি বা ১ দশমিক ৬০ শতাংশ কমে ২৯ কোটি ৭৬ লাখ ৩০ হাজার কেজিতে নেমেছে।

অন্যদিকে ভারতে ব্ল্যাক টিয়ের উপাদনে বড় ধরনের উল্লম্ফন দেখা দিয়েছে। গত বছর দেশটিতে সব মিলিয়ে ১৩৮ কোটি ৯৭ লাখ কেজি ব্ল্যাক টি উপাদন হয়েছে। আগের বছরে দেশটিতে পণ্যটির উপাদনের পরিমাণ ছিল ১৩৩ কোটি ৮৬ লাখ ৩০ হাজার কেজি। অর্থা আগের বছরের তুলনায় ২০১৯ সালে ভারতে ব্ল্যাক টিয়ের উপাদন ৫ কোটি ১০ লাখ ৭০ হাজার কেজি বা ৩ দশমিক ৮২ শতাংশ বেড়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন