রবিবার | সেপ্টেম্বর ২০, ২০২০ | ৫ আশ্বিন ১৪২৭

দেশের খবর

তিন জেলায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৭

বণিক বার্তা ডেস্ক

সড়ক দুর্ঘটনায় দেশের তিন জেলায় সাতজন নিহত হয়েছেন। শুক্রবার রাত থেকে গতকাল বিকাল পর্যন্ত বরগুনা, নারায়ণগঞ্জ ও সুনামগঞ্জে এসব ঘটনা ঘটে। প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর— 

বরগুনা: জেলার আমতলী উপজেলার আমতলী-কুয়াকাটা চৌরাস্তা এলাকায় সড়ক দুর্ঘটনায় মা-ছেলেসহ তিনজন নিহত হয়েছেন। ঘটনায় আহত হয়েছেন আটজন। গতকাল বেলা সাড়ে ১১টার দিকে একটি যাত্রীবাহী বাস অটোরিকশাকে চাপা দিলে ঘটনাস্থলেই তিনজন মারা যান। নিহত হলেন নূপুর বেগম (৩০), তার ছেলে নিশাত (১০) নূপুরের বড় বোনের মেয়ে লামিয়া (১৫)

স্থানীয় পুলিশ সূত্রে জানা যায়, পটুয়াখালী থেকে ছেড়ে আসা মায়ের দোয়া পরিবহনের বাসটি আমতলী এলাকায় একটি মাইক্রোবাসকে ধাক্কা দেয়। অবস্থায় চালক বাসটি চালু

রেখে পালিয়ে যান। চালকছাড়া নিয়ন্ত্রণহীন বাসটি দুটি অটোরিকশাকে চাপা দিয়ে সামনে চলতে থাকে। সময় দ্রুতগতিতে চলা চালকহীন বাসটিতে চাপা পড়েন কয়েকজন পথচারী। এছাড়া চালকহীন বাসটি দ্রুতগতিতে একটি মাইক্রোবাস, দুটি ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাকে চাপা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই তিনজন নিহত হয়েছেন।

নিহত নূপুরের এক স্বজন জানিয়েছেন, নূপুর তার ছেলে নিশাত, মেয়ে মমতা বড় বোনের মেয়ে লামিয়াকে নিয়ে গাজীপুর বন্দর থেকে বাড়ি ফিরছিলেন।

দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করে আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবুল জানান, খবর পেয়ে সার্কেল এএসপি সৈয়দ রবিউল ঘটনাস্থলে যান। আহত লোকজনকে আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। ঘটনায় পুলিশ মামলা দায়ের করবে বলেও জানান তিনি।

সুনামগঞ্জ: জেলার দিরাই-মদনপুর সড়কে পিকআপ ভ্যানের চাপায় দুই মোটরসাইকেল আরোহীর মৃত্যু হয়েছে। ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো একজন। গতকাল বিকাল সাড়ে ৪টায় দিরাই পৌর সদরের সুজানগর এলাকায় দুর্ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, দিরাই থেকে ছেড়ে যাওয়া পিকআপ ভ্যান (ঢাকা মেট্রো--১৫-১৩৩০) বিপরীত দিক থেকে আসা মোটরসাইকেলকে চাপা দিলে মোটরসাইকেলের তিন আরোহী আহত হন।

আহত অবস্থায় তাদের দিরাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে এলে কর্তব্যরত ডাক্তার দুজনকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহতরা হলেন করিমপুর ইউনিয়নের নাগেরগাঁও গ্রামের মৃত মিয়াধন উল্লার ছেলে আমেরিকা প্রবাসী মুমিন মিয়া (২৮) তিনি আমেরিকা থেকে দেশে এসে মাসের তারিখে বিয়ে করেছেন। অন্যজন হলেন একই গ্রামের ধরণী দাসের ছেলে তারেশ দাস (৩০) গুরুতর আহত অবস্থায় মোটরসাইকেল আরোহী বদলপুর গ্রামের মুকুল মিয়াকে (২৭) সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

দুর্ঘটনার বিষয়টি নিশ্চিত করে দিরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কেএম নজরুল জানান, পিকআপ ভ্যানের ঘাতক চালক গাড়ি রেখে পালিয়ে গেছেন। নিহতদের সুরতহাল রিপোর্ট তৈরি করা হয়েছে।

নারায়ণগঞ্জ: নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে ট্রাকের ধাক্কায় প্রাইভেট কার খাদে পরে ধ্রুব কান্ত সাহা তার স্ত্রী অজন্তা সাহা নিহত হয়েছেন। গত শুক্রবার রাতে উপজেলার কাঞ্চন পৌরসভার কালাদী এলাকায় দুর্ঘটনা ঘটে। ঘটনায় ধ্রুব কান্ত সাহার মেয়ে স্বর্ণালী সাহা গুরুতর আহত হয়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে রূপগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ মাহমুদুল হাসান জানান, শুক্রবার রাতে ধ্রুব কান্ত সাহা তার ব্যক্তিগত প্রাইভেট কারযোগে (ঢাকা মেট্রো -৩২-০৯২৫) স্ত্রী অজন্তা সাহা মেয়ে স্বর্ণালী সাহাকে নিয়ে নরসিংদী থেকে তার নিজ বাসভবন বসুন্ধরায় যাচ্ছিলেন। এশিয়ান হাইওয়ে সড়ক দিয়ে বসুন্ধরার বাসায় যাওয়ার পথে কালাদী এলাকায় পৌঁছলে বিপরীত দিক থেকে আসা দ্রুতগামী একটি ট্রাক প্রাইভেট কারটিকে ধাক্কা দিলে খাদে পড়ে যায়। ঘটনাস্থলেই ধ্রুব কান্ত সাহা তার স্ত্রী অজন্তা সাহা মারা যান। আর মেয়ে স্বর্ণালী সাহা গুরুতর আহত হয়। পরে হাইওয়ে পুলিশ তাদের মরদেহ দুর্ঘটনাকবলিত গাড়িটি উদ্ধার করে। ঘটনায় গতকাল সকালে নিহতের ছেলে শুভ কান্ত সাহা বাদী হয়ে রূপগঞ্জ থানায় মামলা করেন।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন