মঙ্গলবার | জুন ০২, ২০২০ | ১৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

খবর

নুর ও তার অনুসারীরাই সিসিটিভি ফুটেজ গায়েব করেছে: সাদ্দাম

বণিক বার্তা অনলাইন

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) ভবন থেকে সিসিটিভি ফুটেজ গায়েবে ভিপি নুর ও তার অনুসারীরাই দায়ী বলে অভিযোগ করছেন, বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ও ডাকসুর সহসাধারণ সম্পাদক (এজিএস) সাদ্দাম হোসেন।

আজ রোববার (২৯ ডিসেম্বর) বেলা সাড়ে ১১টায় ডাকসু ভবনে সংবাদ সম্মেলন করে তিনি এ অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ডাকসু ভবনে গত (২২ ডিসেম্বর) হামলার শিকার হয়ে আহত হওয়া ভিপি নুর ও তার সংগঠনের নেতাকর্মীরাই সেখানে থাকা সিসিটিভির ফুটেজ গায়েব করেছে।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে ডাকসুর এজিএস সাদ্দাম হোসেন বলেন, ‘গত ২২ ডিসেম্বর ডাকসু ভবনে হামলার যে ন্যক্কারজনক ঘটনাটি  ঘটেছে, সেটি ভিপি নুর ও তার সংগঠন দ্বারা মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ (বুলবুল-মামুন অংশ) নামক একটি সংগঠনের ওপর গত ১৭ ডিসেম্বর হামলার জের ধরে ঘটে। সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ ও মুক্তিযুদ্ধ মঞ্চ বেশ কিছুদিন যাবৎ বিবদমান। পাল্টাপাল্টি বক্তব্য, কর্মসূচি ও সংঘর্ষের মধ্য দিয়ে সংগঠন দুটি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে অস্থিতিশীল পরিবেশ তৈরির কাজে লিপ্ত। উভয় সংগঠন নিজেদের সাংগঠনিক শক্তিবৃদ্ধি ও অস্তিত্ব জানান দেওয়ার নাম করে মিডিয়াবাজির মাধ্যমে পরিচিতি লাভের অভিপ্রায় থেকে এমন হীন কর্মে নিয়োজিত।

সংবাদ সম্মেলনে ডাকসুর সহ-সাধারণ সম্পাদক কিছু দাবি উত্থাপন করেন। সেগুলো হচ্ছে,১ ডাকসু নেতৃবৃন্দ, সিনেট সদস্য, হল সংসদের নেতৃবৃন্দ, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের বিভিন্ন স্তরের নেতৃবৃন্দের নামে মিথ্যা মামলার অভিযোগ প্রত্যাহার করতে হবে, ২. ডাকসু ভবনের ভেতরে অবস্থান নেওয়া নুরের সহযোগী বহিরাগতদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে, ৩. ডাকসু ভবন ভাঙচুরের সঙ্গে জড়িত উভয়পক্ষের সদস্যদের বিরুদ্ধে উপযুক্ত ব্যবস্থা গ্রহণ করতে হবে, ৮. ডাকসু ভবনের সিসিটিভি ফুটেজ উদ্ধার করে প্রকৃত দোষীদের চিহ্নিত করে আইনের আওতায় আনতে হবে, ৫. দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত ডাকসু ভিপিকে পদত্যাগ করতে হবে। নুরের দুর্নীতি তদন্তে কমিটি গঠন করতে হবে, ৬. সাম্প্রদায়িক উস্কানিমূলক বক্তব্য দেওয়ায় নুরকে নিঃশর্ত ক্ষমা প্রার্থনা করতে হবে, অন্যথায় তার বিরুদ্ধে প্রশাসনিক ও আইন অনুসারে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি করেন তারা।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন