শুক্রবার | ডিসেম্বর ১৩, ২০১৯ | ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

টেলিকম ও প্রযুক্তি

হুয়াওয়ের সঙ্গে ব্যবসা বন্ধে কানাডাকে যুক্তরাষ্ট্রের চাপ

বণিক বার্তা ডেস্ক

নিষেধাজ্ঞার জের ধরে চীনা টেক জায়ান্ট হুয়াওয়ের সঙ্গে ব্যবসা সীমিত করেছে যুক্তরাষ্ট্র ইউরোপের দেশগুলো। এবার প্রতিষ্ঠানটির সঙ্গে ব্যবসা পুরোপুরি বন্ধ করতে কানাডার ওপর চাপ তৈরি করেছে ওয়াশিংটন। যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা রবার্ট ব্রায়েন কানাডার প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেছেন, কানাডায় পঞ্চম প্রজন্মের ফাইভজি নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে হুয়াওয়ের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান করা উচিত। খবর বিজনেস ইনসাইডার ব্লুমবার্গ।

সম্প্রতি কানাডায় অনুষ্ঠিত ইন্টারন্যাশনাল সিকিউরিটি ফোরামে অংশ নিয়েছিলেন রবার্ট ব্রায়েন। আয়োজনে ৭০টি দেশের প্রায় ৩০০ শিক্ষাবিদ, সামরিক সরকারি কর্মকর্তার সামনে দেয়া বক্তব্যে তিনি বলেন, হুয়াওয়ের কার্যক্রম যুক্তরাষ্ট্রের মতো কানাডার জাতীয় নিরাপত্তার জন্যও হুমকি। এটা বিবেচনায় নিয়ে কানাডাজুড়ে ফাইভজি নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে হুয়াওয়ের প্রস্তাব ফিরিয়ে দেয়া উচিত অটোয়ার। তা না হলে, প্রস্তাব দেশটির সামনে ট্রোজান হর্সের মতো সমস্যা তৈরি করবে।

তিনি আরো বলেন, হুয়াওয়ে চীন সরকারের হয়ে বিপুল পরিমাণ মানুষের ব্যক্তিগত তথ্য হাতিয়ে নেয়ার সঙ্গে যুক্ত রয়েছে। প্রতিষ্ঠানটির কাছে অসংখ্য মানুষের স্বাস্থ্য, ব্যাংকিংসহ বিভিন্ন বিষয়ে স্পর্শকাতর একান্ত ব্যক্তিগত তথ্য রয়েছে।

চীন সরকারের হয়ে গুপ্তচরবৃত্তির অভিযোগ তুলে গত মে মাসে হুয়াওয়ের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে ওয়াশিংটন। ফলে যুক্তরাষ্ট্র ইউরোপের বাজারে চীনা টেক জায়ান্ট বড় ধরনের চ্যালেঞ্জের সম্মুখীন হয়। তবে বরাবরই অভিযোগ অস্বীকার করে এসেছে প্রতিষ্ঠানটি।

সম্প্রতি নিষেধাজ্ঞার মুখে থাকা হুয়াওয়ের সঙ্গে ব্যবসা এগিয়ে নিতে আগ্রহী মার্কিন কোম্পানিগুলোকে ৯০ দিনের বিশেষ লাইসেন্স দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। ফলে মার্কিন কোম্পানিগুলো সহজেই হুয়াওয়ের কাছ থেকে মোবাইল তৈরি নেটওয়ার্ক সম্প্রসারণে প্রয়োজনীয় যন্ত্রাংশ আমদানি করতে পারবে। পরিস্থিতিতে যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা কানাডার প্রতি হুয়াওয়ের সঙ্গে ব্যবসা বন্ধের প্রকাশ্য আহ্বান জানালেন।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন