রবিবার | মে ৩১, ২০২০ | ১৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭

শেষ পাতা

বাংলাদেশে পর্যটকদের মাত্র ২% বিদেশী

মনজুরুল ইসলাম

দেশের বিভিন্ন পর্যটনকেন্দ্রে প্রতি বছর ভ্রমণ করছে প্রায় ৯০-৯৫ লাখ পর্যটক। এর মধ্যে বিদেশী পর্যটক মাত্র শতাংশ। মূলত খাতটির অবকাঠামোগত দুর্বলতার কারণেই বিদেশী পর্যটক আকর্ষণে বিশ্বের সবচেয়ে পিছিয়ে থাকা দেশগুলোর তালিকায় পড়ে গেছে বাংলাদেশ। যদিও দেশের পর্যটনের প্রচার প্রসারের লক্ষ্যে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে অনুষ্ঠিত আন্তর্জাতিক পর্যটন মেলাগুলোয় নিয়মিতই অংশ নিচ্ছে বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ড (বিটিবি)

দেশের বেসরকারি খাত নিয়ে মার্কিন উন্নয়ন সংস্থা ইউএসএআইডি সম্প্রতি একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে। কম্প্রিহেনসিভ প্রাইভেট সেক্টর অ্যাসেসমেন্ট (সিপিএসএ) শীর্ষক প্রতিবেদনে জানানো হয়, দেশে শুধু পর্যটনকেন্দ্রগুলোয় ভ্রমণের উদ্দেশ্য নিয়ে আসে বিদেশীদের মাত্র শতাংশ।

প্রতিবেদনে বলা হয়, বাংলাদেশ ভ্রমণে আসা বিদেশী নাগরিকদের সবচেয়ে বড় অংশই আসে তৈরি পোশাক খাতের ব্যবসায়িক প্রতিনিধি হিসেবে, যা মোট বিদেশীর ৪০ শতাংশ। এর পরই রয়েছে উন্নয়ন খাতের বিভিন্ন কাজে আসা বিদেশীরা। মোট বিদেশীর মধ্যে এদের হার ২৫ শতাংশ। এছাড়া বেসরকারি খাতে প্রত্যক্ষ বিদেশী বিনিয়োগসংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দূতাবাসসংশ্লিষ্টরা রয়েছে ১৫ শতাংশ করে। বিদেশীদের মধ্যে বাকি শতাংশ বাংলাদেশে আসছে প্রকৃত পর্যটক হিসেবে।

বিটিবি সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছরের প্রথম সাত মাসে (জানুয়ারি-জুলাই) বাংলাদেশ ভ্রমণ করেছে লাখ ৮৯ হাজার ৮৮৭ জন বিদেশী। এর মধ্যে প্রকৃত পর্যটকসংক্রান্ত কোনো পরিসংখ্যান সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে নেই। একই অবস্থা আগের বছরগুলোর ক্ষেত্রেও। গত বছর বাংলাদেশে ভ্রমণে এসেছিল প্রায় লাখ ৬৮ হাজার বিদেশী। এর আগে ২০১৭ সালেও প্রায় একই সংখ্যক বিদেশীর আগমন ঘটে বাংলাদেশে।

প্রসঙ্গত, দেশের পর্যটনের প্রচার প্রসারের লক্ষ্যে ২০১০ সালে গঠন করা হয় বিটিবি। সংস্থাটি গঠনের অন্যতম উদ্দেশ্য ছিল দেশের পর্যটন খাত সম্পর্কে বিদেশে ব্যাপক প্রচার-প্রচারণা চালানো। প্রতিষ্ঠার প্রায় এক দশক পেরোতে চললেও এখনো পর্যটন খাতের উন্নয়নে কোনো মহাপরিকল্পনা তৈরি করতে পারেনি সংস্থাটি। বিটিবির কর্মকর্তারা বিদেশে অনুষ্ঠিত মেলাগুলোতেই অংশগ্রহণ করেছেন শুধু। মেলাগুলোর কার্যক্রম মূলত বিদেশী বিভিন্ন সংস্থার কাছে দেশের পর্যটন সম্পর্কে তুলে ধরা, সভা-সমাবেশে যোগদান করা স্টেকহোল্ডারদের সঙ্গে বৈঠকের মধ্যেই সীমাবদ্ধ। সেক্ষেত্রে এসব মেলায় অংশ নিয়ে আদতেই বিদেশী পর্যটকদের আকৃষ্ট করা যাচ্ছে কিনা সে বিষয়ে প্রশ্ন তুলছেন সংশ্লিষ্টরা।

তবে গত কয়েক বছরে বিদেশী পর্যটকের সংখ্যা বেড়েছে বলে দাবি

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন