শনিবার | ডিসেম্বর ০৭, ২০১৯ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

টকিজ

নেটফ্লিক্সের জন্য স্টার ওয়ার্স থেকে সরে দাঁড়ালেন বেনিওফ ও ওয়েস

ফিচার ডেস্ক

সিংহাসনের লড়াইয়ে কে জিতবেন? গত আট বছর ধরে ঘুরছে প্রশ্নটা। প্রশ্নটা ঘুরছে গেম অব থ্রোনস-এর হাত ধরে। এটির জন্য বিশ্বজুড়ে দর্শক অপেক্ষা করেন রাজায়-রাজায় এ যুদ্ধ দেখার জন্য। ২০১১ সালে শুরু হওয়া ফিকশনটির এ বছর অষ্টম তথা শেষ পর্ব প্রচারিত হয়। বিশ্বব্যাপী জনপ্রিয় এ টেলিছবিটির নির্মাতা ডেভিড বেনিওফ ও ডিবি ওয়েস। তুমুল আলোচিত এ দুই নির্মাতা ২০১৮ সালের প্রথম দিকে ডিজনি লুকাসফিল্মের সঙ্গে নতুন চলচ্চিত্রের জন্য চুক্তিবদ্ধ হন। তবে নেটফ্লিক্সের জন্য ব্যস্ততার কথা বলে সম্প্রতি তারা ডিজনি লুকাসফিল্মের আসন্ন স্টার ওয়ার্স ট্রিলজি থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিয়েছেন।

গত বছর ডিজনি লুকাসফিল্মের সঙ্গে চুক্তিটি করার সময় ব্যাপক আলোচনার জন্ম দিয়েছিল। চুক্তির অধীনে মূল চলচ্চিত্র গল্পের বাইরে গিয়ে বেনিওফ ও ওয়েস নতুন চলচ্চিত্রগুলো রচনা এবং প্রযোজনা করবেন, যা দ্য রাইজ অব স্কাইওয়াকের মধ্য দিয়ে এ ডিসেম্বরে শেষ হওয়ার কথা ছিল। তবে চলতি বছরের শুরুর দিকে গেম অব থ্রোনসের চূড়ান্ত পর্বটির কাজ চলাকালেই চুক্তি নিয়ে নতুন করে কথা শুরু হয়। পরে আগস্টে এসে তারা নেটফ্লিক্সের জন্য চিত্রনাট্য লিখতে, ছবি তৈরি করতে এবং পরিচালনা করতে এইচবিও ছেড়ে দিতে সম্মত হয়। নেটফ্লিক্সের সঙ্গে এটি তাদের ২০০ মিলিয়ন ডলারের চুক্তি বলে অনুমান করা হয়।

ডেভিড বেনিওফ ও ডিবি ওয়েস নিজেদের স্টার ওয়ার্স থেকে সরিয়ে নেয়া সিদ্ধান্তের সময়েই নেটফ্লিক্সের সঙ্গে চুক্তির বিষয়টি সামনে আসে। তারা বলেন, দিনে আমরা নির্দিষ্ট কিছু ঘণ্টা সময় পাই। আমরা অনুভব করেছি, স্টার ওয়ার্স ও আমাদের নেটফ্লিক্স প্রজেক্ট উভয়ের সঙ্গে আমরা ন্যায়বিচার করতে পারছি না। তাই আফসোস থেকে দূরে সরে যাচ্ছি।

আমরা স্টার ওয়ার্সকে ভালোবাসি। জর্জ লুকাস যখন এটি নির্মাণ করেছিলেন, তখন তিনি আমাদেরও তৈরি করেছিলেন। তার সঙ্গের স্টার ওয়ার্স এবং বর্তমান স্টার ওয়ার্স দলের সঙ্গে কাজ করা রোমাঞ্চকর ছিল। আমরা সর্বদা বদলে যাওয়া কাহিনীর প্রতি ঋণী থাকব।

লুকাসফিল্মের সভাপতি ক্যাথলিন কেনেডি বলেন, ডেভিড বেনিওফ ও ডিবি ওয়েস অবিশ্বাস্য গল্পকার। তারা তাদের ব্যস্ততার জন্য স্টার ওয়ার্স থেকে মনোনিবেশ সরিয়ে নিলেও আমরা আশা করি, তারা তাদের কাজ নিয়ে এগিয়ে যাক।

এ ট্রিলজিটি নিয়ে কী ঘটতে চলছে সে সম্পর্কে আর কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন