শনিবার | নভেম্বর ২৩, ২০১৯ | ৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

শিল্প বাণিজ্য

কনটেইনার পরিবহনে সক্ষমতা যাচাইয়ের চুক্তি

নিজস্ব প্রতিবেদক চট্টগ্রাম ব্যুরো

ঈগল রেলের সাহায্যে চট্টগ্রাম বন্দরের কনটেইনার এক ইয়ার্ড থেকে অন্য ইয়ার্ডে নেয়ার ফিজিবিলিটি স্টাডি বা সক্ষমতা যাচাইয়ের লক্ষ্যে যুক্তরাষ্ট্রের একটি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) সই হয়েছে। গতকাল দুপুরে বন্দর ভবনে এ চুক্তি সই অনুষ্ঠান হয়। এতে বন্দরের পক্ষে চেয়ারম্যান রিয়ার অ্যাডমিরাল জুলফিকার আজিজ এবং ঈগল রেল কনটেইনার লজিস্টিকসের পক্ষে মি. মাইক সই করেন।

বন্দর সূত্রে জানা গেছে, বিশ্বের আধুনিক বন্দরগুলোয় দ্রুত ও নিরাপদে কনটেইনার হুক পয়েন্ট থেকে দূরের ইয়ার্ড বা টার্মিনালে নিয়ে যেতে ঈগল রেল ব্যবহার করা হয়। ধারণা করা হচ্ছে, আধুনিক এ প্রযুক্তি চট্টগ্রাম বন্দরে ব্যবহূত হলে কনটেইনার মুভমেন্ট কমপক্ষে ১৫ শতাংশ বাড়বে। বৈদ্যুতিক শক্তিতে রেল ট্রেকের সাহায্যে ৪০ ফুট ওপর দিয়ে কনটেইনার পরিবহন হবে এ পদ্ধতিতে। স্বাভাবিক রেললাইনের সঙ্গে ঈগল রেলের পার্থক্য হলো ট্রেন চলে রেললাইনের ওপর দিয়ে, কিন্তু কনটেইনার যাবে রেললাইনের নিচে ঝুলন্ত অবস্থায়। ঘণ্টায় ২০ ফুট দীর্ঘ ৩০০ কনটেইনার মুভমেন্ট করা যাবে এ পদ্ধতিতে।

বন্দরের কর্মকর্তাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সদস্য (প্রশাসন ও পরিকল্পনা) মো. জাফর আলম, পরিচালক (প্রশাসন) মো. মমিনুর রশিদ, পরিচালক (পরিবহন) মো. এনামুল করিম, প্রধান প্রকৌশলী আমিনুল ইসলাম, প্রধান অর্থ ও হিসাবরক্ষণ কর্মকর্তা হাবিবুর রহমান, প্রধান পরিকল্পনাবিদ মাহবুব মোরশেদ, উপপ্রধান প্রকৌশলী মির্জা রাকিবুল ইসলাম, উপসচিব আজিজুল মাওলা প্রমুখ।

এই বিভাগের আরও খবর

আরও পড়ুন